kalerkantho


ফিলিস্তিনি হত্যায় সম্মতি আছে ইসরায়েলের বিচার বিভাগের!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৫ মে, ২০১৮ ২২:০৯



ফিলিস্তিনি হত্যায় সম্মতি আছে ইসরায়েলের বিচার বিভাগের!

গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলি স্নাইপারের গুলিতে এখন পর্যন্ত নিহতের সংখ্যা শতাধিক। ইসরায়েলি বাহিনীর বিচার বহির্ভূত হত্যাকাণ্ডের ব্যাপারে অভিযোগ জানিয়ে দেশটির আদালতে দুটি পিটিশন দায়ের করা হয় মানবাধিকার সংগঠনের পক্ষে।

জানা গেছে, ইসরায়েলের আদালতে সেই অভিযোগ দুটি বিবেচনা না করেই খারিজ করে দেওয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে বৃহস্পতিবার ইসরায়েলি সেনা আদালতের তিনজন বিচারকের একটি বেঞ্চ দাবি করেছেন, বিক্ষোভকারীরা (গাজার) সত্যিই ইসরায়েলি সেনা এবং নাগরিকদের জন্য খুবই বিপজ্জনক।

তারা আরো বলেন, ইসরায়েলি সেনারা আন্তর্জাতিক আইন মেনেই সেখানে সহিংসতা দমন করছে। গাজা উপত্যকার সহিংসতা সেখানকার হামাস এবং ফাতাহর অন্তদ্বন্দ্ব বলেও উল্লেখ করেন তারা।

মানবাধিকার সংগঠন আরব মাইনরিটি ফর হিউম্যান রাইটস এবং আল মিজান সেন্টার ফর হিউম্যান রাইটস ওই দুটি অভিযোগ দিয়েছিল। শুক্রবার আরব মাইনরিটি ফর হিউম্যান রাইটস এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, এ ধরনের আচরণের মাধ্যমে ইসরায়েলের আদালত এটাই প্রমাণ করেছে যে, তাদের স্নাইপারের গুলিতে গাজার বাসিন্দাদের হত্যা করার ঘটনায় সে দেশের বিচার ব্যস্থার সমর্থন রয়েছে।

বিবৃতিতে আরো বলা হয়, তারা এ ধরনের আচরণের দ্বারা ইসরায়েলি স্নাইপারের নির্মম বর্বরতাকে সমর্থন করেছেন। সেটা প্রমাণ হয়ে গেছে।



মন্তব্য