kalerkantho


জরুরি অবস্থা সত্ত্বেও শ্রীলঙ্কায় মসজিদে আগুন

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৭ মার্চ, ২০১৮ ১৩:০১



জরুরি অবস্থা সত্ত্বেও শ্রীলঙ্কায় মসজিদে আগুন

শ্রীলঙ্কায় জরুরি অবস্থা ঘোষণা সত্ত্বেও মুসলিমবিরোধী সহিংসতা অব্যাহত রয়েছে। দেশটির মধ্যাঞ্চলে একটি দোকান ও একটি মসজিদে আগুন দেওয়া হয়েছে। শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনা মঙ্গলবার ১০ দিনের জন্য জরুরি অবস্থা ও অবরোধ আরোপ করেন। মুসলিমবিরোধী দাঙ্গা যাতে না ছড়াতে পারে সে জন্য মন্ত্রিসভার জরুরি বৈঠক শেষে তিনি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। কিন্তু তার ঘোষণায় কোনো ফল আসেনি।

আল জাজিরা বলছে, ওই ঘোষণার পর মসজিদে আগুন দেয়া ছাড়াও দোকানেও আগুন লাগানো হয়েছে। জরুরি অবস্থা ঘোষণা ও সান্ধ্য আইন জারি করার এক ঘণ্টা পর এই হামলার ঘটনা ঘটে। পরবর্তীতে দমকল বাহিনী এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে। স্থানীয় অনলাইন পত্রিকা গ্রাউন্ড ভিউ জানায়, উচ্ছৃঙ্খল জনতা ওয়াট্টাগামা গ্রামের একটি মসজিদে হামলা চালিয়েছে। গ্রামটি ক্যান্ডি শহর থেকে উত্তর পূর্বে অবস্থিত।

কলোম্বোভিত্তিক একটি ওয়েবসাইট মসজিদের জানালার ভাঙা কাচ ও চেয়ারের ছবি প্রকাশ করেছে। একটি অডিও ক্লিপে শোনা যায়, হামলার সময় এক ব্যক্তি মসজিদের ভেতরে আটকা পড়েছিলেন। এর বাইরে কোনো বড় ঘটনা ঘটেনি। পুলিশ ও সেনাবাহিনী পুরো অঞ্চলের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নিয়েছে। পুলিশ এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হয়নি। তবে এই ঘটনায় কয়েক ডজন ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

 


মন্তব্য