kalerkantho


শিক্ষকদের সশস্ত্র হওয়ার ব্যাপারে ট্রাম্পের পরামর্শ ভয়ঙ্কর!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ২০:১৫



শিক্ষকদের সশস্ত্র হওয়ার ব্যাপারে ট্রাম্পের পরামর্শ ভয়ঙ্কর!

শিক্ষকদের কাছে অস্ত্র থাকলে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে হামলার ঘটনা অনেকটা রোধ করা সম্ভব হবে বলে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বক্তব্যের বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন অনেকেই। গত সপ্তাহে ফ্লোরিডার এক স্কুলে ভয়াবহ বন্দুক হামলায় ১৭ জনের প্রাণহানির পর গত বুধবার এ ধরনের মন্তব্য করেন ট্রাম্প।

তবে বন্দুক হামলার শিকারদের পরিবারের সদস্য থেকে শুরু করে শিক্ষক, রাজনীতিবিদ, চিকিৎসক, সাংবাদিকসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষ ট্রাম্পের এ ধরনের প্রস্তাবকে বিপজ্জনক এবং ভয়ঙ্কর হিসেবে বিবেচনা করছেন।

২০১২ সালে এক বন্দুক হামলায় নিহত হয়েছেন নিকলে হকলির ছেলে ডাইলান। এতোগুলো বছর তিনি ছেলেরে স্মৃতি আঁকড়ে বেঁচে আছেন। তিনিও ট্রাম্পের যুক্তি মানতে পারেননি। তিনি বলেন, এটা কোনোভাবেই আমি সমর্থন করি না।

তিনি আরো বলেন, শিক্ষক হোক আর যে পেশার মানুষই হোন না কেন, সাধারণ কারো কাছে অস্ত্র দেওয়াটা ঠিক নয়। এতে করে বিপদের ঝুঁকি আরো বেড়ে যাবে। দেখা যাবে, শিক্ষকদের অস্ত্র দেওয়া হলে সমস্যাটা আরো প্রকট আকার ধারণ করছে।

তবে ট্রাম্পের দাবি, কোনো শিক্ষকের কাছে অস্ত্র থাকলে প্রতিকূল পরিস্থিতিতে তিনি দ্রুত তা মোকাবিলা করতে পারবেন।

আলফোনসো নামের একজন এ ব্যাপারে বলেন, শিক্ষক মানে তিনি জ্ঞান বিতরণ করবেন। অস্ত্র নিয়ে তো তিনি ঘুরতে পারেন না। অস্ত্র তার সঙ্গে মানায় না। ট্রাম্পের যুক্তি একেবারে বিপজ্জনক।

তিনি আরো বলেন, শিক্ষক তার ছাত্রদের শেখান, কীভাবে বাস্তব জগতে চলতে হয়। কোনো শিক্ষক তার ছাত্রকে এটা শেখাতে পারেন না যে, কেউ আক্রমণ করতে পারে বলে সঙ্গে অস্ত্র নিয়ে বেড়াতে হবে।

এরকম অনেকেই ট্রাম্পের যুক্তির প্রতিবাদ জানিয়ে ট্রইট করেছেন। ট্রাম্প যে একেবারে অযৌক্তিক যুক্তি দেখিয়েছেন সেটাও তারা ব্যাখ্যা সহকারে দেখিয়েছেন।

সূত্র : আলজাজিরা



মন্তব্য