kalerkantho


ইরাকে আইএসে যোগ দেওয়া জার্মান নারীর মৃত্যুদণ্ড

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ জানুয়ারি, ২০১৮ ১৫:৩৬



ইরাকে আইএসে যোগ দেওয়া জার্মান নারীর মৃত্যুদণ্ড

ছবি অনলাইন

জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেটের (আইএস) এক নারী সদস্যকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে ইরাকের একটি আদালত। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত সে নারী মরক্কোর বংশোদ্ভূত জামার্নির নাগরিক।

ইরাকের সুপ্রিম জুডিসিয়াল কাউন্সিলের মুখপাত্র আবদেল সেত্তার বলেন, আইএসকে রসদ সরবরাহ এবং অপরাধ সংঘটনে সহযোগিতার দায়ে তাকে এই দণ্ড দেয়া হয়। জিজ্ঞাসাবাদে ওই নারী আইএসে যোগ দিতে দুই কন্যাসহ সিরিয়ার উদ্দেশে জার্মানি ত্যাগ করার কথা স্বীকার করেন। পরবর্তী সময়ে তিনি ইরাকে আসেন এবং সংগঠনটির এক সদস্যকে বিয়ে করেন। তার দুই কন্যাও পরে আইএস সদস্যদের বিয়ে করেন।

আরো পড়ুন : আইএস এর পর মধ্যপ্রাচ্যে কী আসছে?

২০১৭ সালের জুলাই মাসে মসুল থেকে আইএস যোদ্ধাদের বিতাড়িত করে ইরাকি বাহিনী। এর মধ্য দিয়ে ওই শহরে আইএসের তিন বছরের নিয়ন্ত্রণের সমাপ্তি ঘটে।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত সেই নারীর নাম প্রকাশ করা হয়নি। তবে জানা গেছে, তিনি জার্মানির ম্যানহেইমে বাস করতেন। এরপর সিরিয়া হয়ে তিনি আইএসে যোগ গিতে ইরাকে প্রবেশ করেন।

জুলাইতেই  মসুলে আইএসের সদস্য এক জার্মান কিশোরীকে গ্রেফতার করা হয়। আটককৃত আরো তিন নারীর সঙ্গে তাকে বাগদাদে রাখা হয়েছে।

আরো পড়ুন : আইএস ‘রাজধানী’ রাক্কা শহর পুনর্দখল

ইরাকে গ্রেফতার আইএস সদস্যদের সুনির্দিষ্ট কোনো পরিসংখ্যান নেই। তবে পুলিশ চিফ অব জেনারেল ওয়াসিক আল-হামদানি বলেছেন, মসুল এবং এর আশপাশের এলাকা থেকে চার হাজার জঙ্গিকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের অনেককেই এখন বিচারের মুখোমুখি করা হচ্ছে।

সূত্র : ইনডিপেনডেন্ট



মন্তব্য