kalerkantho


ট্রাম্প দম্পতির বিছানার খবর প্রকাশ করে তুমুল বিতর্কে লেখক

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৬ জানুয়ারি, ২০১৮ ০৫:২৪



ট্রাম্প দম্পতির বিছানার খবর প্রকাশ করে তুমুল বিতর্কে লেখক

ছবি: ইন্টারনেট থেকে

মার্কিন প্রেসিডেন্টের 'হাঁড়ির খবর' প্রকাশ্যে এনে তুমুল বিতর্কে পড়েছে 'ফায়ার অ্যান্ড ফারি ইনসাইড দ্য ট্রাম্প হোয়াইট হাউস' নামে বইটি। ওই বইটির লেখক মাইকেল উল্ফ ট্রাম্পের ব্যক্তিজীবন নিয়ে একের পর এক বিস্ফোরক তথ্য সামনে এনেছেন। মার্কিন প্রেসিডেন্টের দাম্পত্য জীবন সুখের নয় বলে দাবি করা হয়েছে ওই বইটিতে। বলা হয়েছে, ডোনাল্ডের বাসভবন ট্রাম্প টাওয়ারে স্ত্রী মেলানিয়ার সঙ্গে তাঁকে সময় কাটাতে খুব কম দেখা গেছে। এমনকী একই বিছানায় ঘুমান না মার্কিন দেশের 'প্রথম দম্পতি'। একই ঘরে আলাদা দু'টি বিছানায় ঘুমান দু'জন।

স্টিভ ব্যাননের হুঙ্কার, ইভানা ট্রাম্পের মার্কিন প্রেসিডেন্ট হওয়ার স্বপ্ন কিংবা ক্ষমতায় আসতে ট্রাম্পের রাশিয়াকে ব্যবহার এমন সব বিতর্কিত তথ্যে ভরপুর উল্ফের বইটিতে। তবে, মেলানিয়া ট্রাম্পের সঙ্গে তিক্ততার সম্পর্ক জেনে অনেকেই অবাক হয়েছেন। প্রশাসনিক অনুষ্ঠান থেকে বিদেশ সফর সস্ত্রীক ট্রাম্পের উজ্জ্বল উপস্থিতি দেখে অভ্যস্ত মার্কিনিরা। ডোনাল্ড-মেলানিয়ার এমন সম্পর্ক প্রকাশ্যে আসতেই তুমুল জল্পনা তৈরি হয়েছে সব মহলেই।

উল্ফের বইটিতে জানা গেছে, ট্রাম্প টাওয়ারে থাকলেও কোনো সম্পর্ক নেই তাঁদের। কখন কোথায় যাচ্ছেন এ নিয়েও মেলানিয়ার সঙ্গে আলোচনা করেন না ট্রাম্প। উল্টো দিক থেকেও ডোনাল্ডের তৃতীয় স্ত্রী মেলানিয়ারও একই আচরণ দেখা গেছে বলে দাবি করা হয়েছে বইটিতে। বলা হয়েছে, ঘরে থাকলেও স্বামীর খোঁজ রাখেন না মেলানিয়া। এমনকী মেলানিয়ার-ডোনাল্ডের ১২ বছরের সন্তান ব্যারনকে নিয়ে কোনো মাথাব্যাথা নেই ট্রাম্পের।

উল্ফের 'ফিয়ার অ্যান্ড ফারি'-তে প্রকাশিত সমস্ত তথ্য খারিজ করে দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। পাল্টা তিনি অভিযোগ করেছেন, 'সম্পূর্ণ মিথ্যা কথা বলা হয়েছে বইটিতে। হোয়াইট হাউসে প্রবেশে কারো অনুমতি নেই। সেখানে কীভাবে এই সব তথ্য লেখেন লেখক? এই বইয়ে উল্লেখিত কোনো বক্তব্যই আমার নয়। এই সব তথ্য ভিত্তিহীন।' সূত্র: ইন্টারনেট



মন্তব্য