kalerkantho


তালিকায় বাদ পড়াদের রোহিঙ্গাদের মতো রাষ্ট্রহীন হয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে

আসামে নাগরিক তালিকা প্রকাশ, বাদ পড়ল ১ কোটি ৩৯ লাখ বাসিন্দা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১ জানুয়ারি, ২০১৮ ১২:৫১



আসামে নাগরিক তালিকা প্রকাশ, বাদ পড়ল ১ কোটি ৩৯ লাখ বাসিন্দা

ছবি অনলাইন

ভারতের আসাম রাজ্যের এক কোটি ৯০ লাখকে বৈধ ঘোষণা করে নাগরিক তালিকার প্রথম খসড়া প্রকাশ করেছে রাজ্য সরকার। আসাম রাজ্যে তিন কোটি ২৯ লাখ নাগরিকের তথ্য পাওয়া যায়। তবে নাগরিকদের এ তালিকায় ১ কোটি ৩৯ লাখ বাসিন্দা এখনও অন্তর্ভুক্ত হননি।

আসামে প্রচুর অবৈধ বাংলাদেশিরা বাস করছেন, এমন অভিযোগ করে আসছে শাসক দল বিজেপি। আর তাদের চাপের মুখেই প্রকৃত নাগরিকদের তালিকা করা হচ্ছে। এ তালিকা নিয়ে সংঘাতের আশঙ্কায় ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে সরকার।


আরো পড়ুন : দেড় বছরেই আসাম-বাংলাদেশ সীমান্ত 'সম্পূর্ণ সিল' করবে ভারত


গতকাল রবিবার মধ্যরাতে এক সংবাদ সম্মেলনে এ খসড়া তালিকা প্রকাশ করেন ভারতের রেজিস্ট্রার জেনারেল শৈলেশ। তবে যাদের নাম বাদ পড়েছে, তারা যদি প্রকৃত ভারতীয় নাগরিক হন তাহলে তাদের পরে অন্তর্ভুক্ত করা হবে বলে জানান তিনি।

আসামের নাগরিকদের তালিকা যাচাই কার্যক্রম পুরো ২০১৮ সালজুড়েই চলবে। এ ছাড়া সব খসড়া প্রকাশিত হওয়ার পরও আবেদন নেয়া হবে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ। তার ভিত্তিতেই তৈরি হবে চূড়ান্ত নাগরিকপঞ্জী।


আরো পড়ুন : 'মুসলিমদের তাড়িয়ে আসামে মিয়ানমার বানাতে চায় বিজেপি'


তালিকায় আংশিক খসড়া প্রকাশের কারণে আসামবাসীর মধ্যে উদ্বেগ কিছু কমেছে। পরবর্তী খসড়ায় নিজেদের নাম অন্তর্ভুক্ত হওয়ার অপেক্ষায় আছেন আরও এক কোটি ৩৯ লাখ মানুষ।

আসামে এখন পর্যন্ত কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবর না পেলেও মোতায়েন করা অতিরিক্ত পুলিশ ও আধা সামরিক বাহিনীর সদস্যদের আরও কয়েক দিন মাঠে রাখা হবে।

ভারত সরকারের দাবি, বাংলাদেশ থেকে অনেকে অবৈধভাবে আসামে অনুপ্রবেশ করে বসবাস করছেন। তাদের ফেরত পাঠাতেই এই পরিচয় যাচাইয়ের উদ্যোগ।

এ তালিকায় যাদের নাম থাকবে, তারাই কেবল আসাম তথা ভারতের বৈধ নাগরিক হিসেবে গণ্য হবেন এবং রাজ্যের বাদবাকি বাসিন্দাদের অবৈধ অনুপ্রবেশকারী হিসেবে গণ্য করা হবে। এ তালিকা থেকে রাজ্যের বহু বাংলা ভাষাভাষী মুসলিম বাদ পড়তে পারেন। তারা পরবর্তীতে রোহিঙ্গাদের মতো রাষ্ট্রহীন হয়ে পড়তে পারেন বলে আশঙ্কা তৈরি হয়েছে।
সূত্র : টাইমস অব ইন্ডিয়া ও বিবিসি



মন্তব্য