kalerkantho


চেঙ্গিস খানের ছবি অবমাননার দায়ে তরুণের জেল

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০৯:০৫



চেঙ্গিস খানের ছবি অবমাননার দায়ে তরুণের জেল

মঙ্গোলিয়ার সাবেক শাসক চেঙ্গিস খানের ছবি পা দিয়ে ইচ্ছাকৃতভাবে মাড়ানোর দায়ে এক চীনা তরুণকে এক বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। জাতিগত বিদ্বেষ ছড়ানোর জন্য তাকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে।

চীনের অভ্যন্তরে মঙ্গোলিয়া অঞ্চলের এক আদালতে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছিল লুয়ো নামের এক তরুণ চেঙ্গিস খানের ছবি ইচ্ছাকৃতভাবে পদদলিত করার ছবি ক্যামেরায় তোলেন মে মাসে।

১৯ বছরের ওই তরুণ এরপর ওই ভিডিও ক্লিপ অনলাইনে পোস্ট করেন। খবরে বলা হয় ওই ভিডিও জনমনে একটা অসন্তোষ তৈরি করে। মোঙ্গল জাতিগোষ্ঠীর মধ্যে চেঙ্গিস খান একজন সম্মানিত তরুণ

রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম শিনহুয়া বলেছে, মঙ্গোলিয়ার ভেতর স্বায়ত্তশাসিত এলাকায় অরদোস শহর যেখানে এই ঘটনা ঘটেছে, সেখানকার আদালত জাতিগত বিদ্বেষ ছড়ানো এবং জাতিবৈষম্য সৃষ্টির দায়ে লুয়োকে দোষী সাব্যস্ত করেছেন।

স্থানীয় একটি নিরাপত্তা ব্যুরোকে উদ্ধৃত করে দ্য পেপার সংবাদমাধ্যম জানাচ্ছে লুয়ো চেঙ্গিস খানের ছবিতে 'পদাঘাত ও অবমাননার' ভিডিও, জনপ্রিয় একটি ভিডিও প্ল্যাটফর্ম কুয়াইশুতে তুলে দেন এবং ইউচ্যাট মেসেজিং অ্যাপে বন্ধুবান্ধব ও বিভিন্ন গ্রুপের মধ্যে ব্যাপকভাবে ভিডিওটি ছড়িয়ে দেন।

এর কড়া প্রতিক্রিয়া হয়েছে এবং পুলিশের কাছে বেশ কিছু রিপোর্ট আসে। কর্তৃপক্ষ এরপর ভিডিওটি সরিয়ে নেয়।

জনমনে আঘাত দেবার জন্য লুয়ো তার বিচার প্রক্রিয়ার সময় ক্ষমা চেয়েছে।

চেঙ্গিস খান ৯ বছর বয়সে অনাথ হন। এবং ১২০৬ সালে মঙ্গোলিয়ার অবিসংবাদিত নেতা হন। ১৩ শ শতাব্দীতে তিনি উত্তরপূর্ব এশিয়া জুড়ে বিশাল সাম্রাাজ্য গড়ে তোলেন।
সূত্র : বিবিসি বাংলা


মন্তব্য