kalerkantho


নির্বাচনের আগেই অবসরে যেতে পারেন পুতিন!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৯ নভেম্বর, ২০১৭ ২১:২৫



নির্বাচনের আগেই অবসরে যেতে পারেন পুতিন!

আর ৪ মাস পরেই রাশিয়ায় রাষ্ট্রপতি নির্বাচন। বর্তমান প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন-কে নিয়ে সে দেশের মানুষ যথেষ্ট খুশি।

অন্তত রিপোর্ট তেমনই বলছে। জনপ্রিয়তা এতটাই যে তিনি ভোটে দাঁড়ালে ৬০ থেকে ৭০ শতাংশ ভোট তাঁর দিকেই পড়বে। কিন্তু আগামী নির্বাচনে আর অংশ নিতে চাইছেন না ক্লান্ত পুতিন। প্রায় সকলের মুখেই এখন এ কথা ঘুরছে। কিন্তু পুতিন এখনও সরকারিভাবে তা ঘোষণা করেননি।

বিভিন্ন সূত্রের খবর, প্রায় ২০ বছর ধরে রাশিয়ায় ক্ষমতার অলিন্দে থাকার পর নতুন করে আর তাঁর ইচ্ছে নেই নির্বাচনে অংশ নিয়ে পুনরায় প্রেসিডেন্ট হওয়ার। তাঁর কথায় মাঝে মধ্যেই ক্লান্তির কথা উঠে এসেছে। তাই এত বড় নির্বাচনে অংশ নেওয়া, তার প্রচার এবং সেই সঙ্গে চাপ নেওয়া থেকে নিজেকে সরিয়ে রাখতে চাইছেন তিনি।

২০১১-২০১২ সালের নির্বাচনের প্রায় ৬ মাস আগেই ঘোষণা করেছিলেন যে, রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে তিনি প্রার্থী হচ্ছেন।

কিন্তু এই নির্বাচনে এখনও পর্যন্ত কোনও উচ্চবাচ্য তাঁর কাছ থেকে শোনা যায়নি। এমনকি মনোনয়ন জমা দেওয়াও তিনি বার বার পিছিয়ে দিয়েছেন। এখানেই তৈরি হয়েছে আশঙ্কা। তবে কি সত্যিই রাজনীতি থেকে সরে দাঁড়াবেন পুতিন?

রাশিয়ার রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের মতে, এই পরিস্থিতি এক নতুন রাজনৈতিক সঙ্কটময় অবস্থার জন্ম দেবে। পুতিন যদি সরে যান, সে ক্ষেত্রে যে শূন্যতা তৈরি হবে তা এ মুহূর্তে দূর করার মতো লোকের যথেষ্ট অভাব রয়েছে। অনেকে এই সঙ্কটকে ১৯৮৯ সালে সমাজতান্ত্রিক সোভিয়েত ইউনিয়ন ভেঙে যাওয়ার সময়ের সঙ্কটের সঙ্গে তুলনা করছেন।

সূত্র: টাইমস অফ ইন্ডিয়া


মন্তব্য