kalerkantho


আফগান সীমান্তে জঙ্গি হামলায় নিহত ৫ পাকিস্তানি সেনা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৬ মার্চ, ২০১৭ ১২:১৩



আফগান সীমান্তে জঙ্গি হামলায় নিহত ৫ পাকিস্তানি সেনা

গত বছরের জুনে কোয়েটার তোরখাম সীমান্ত পোস্টে আফগান রক্ষীদের সঙ্গে সংঘর্ষে নিহত এক সহকর্মীর লাশ নিয়ে ফিরছে পাকিস্তানি সৈন্যরা -ফাইল ফটো

পাকিস্তান-আফগান সীমান্তের তিনটি স্থানে সীমান্তের এপার-ওপার সংঘর্ষে ৫ পাকিস্তানি সেনা নিহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে পাকিস্তান সেনাবাহিনী। এ ঘটনায় সন্দেহভাজন ১০ জন সন্ত্রাসীও নিহত হয়েছে বলে দাবি করা হয়।

পাকিস্তান সেনাবাহিনীর ইন্টার-সার্ভিস পাবলিক রিলেশন্স (আইএসপিআর) এর বরাতে সোমবার ডন.কম জানায়, গত রবিবার রাতে সীমান্তের মোহমান্দ এজেন্সি এলাকায় এসব ঘটনা ঘটে। তবে কার্যকর ও দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়ায় জঙ্গিরা পরাস্ত হয়।  

নিহত সেনা সদস্যরা হচ্ছেন নায়েক সানাউল্লাহ, নায়েক সফদার, সিপাহি আলতাফ, সিপাহি নেক মোহাম্মদ ও সিপাহি আনওয়ার।  

এ ঘটনা এমন একসময় ঘটল যখন পাকিস্তান-আফগান সম্পর্ক তিক্ততার মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। গত মাসে পাকিস্তানের এক মাজারে জঙ্গি হামলায় শতাধিক ব্যক্তি নিহত হন। পাকিস্তান এ ঘটনায় আফগানিস্তানভিত্তিক জঙ্গিদের দায়ী করে আসছে।  

 

 

 

 

 

আফগান সীমান্ত বরাবার সতর্ক প্রহরায় পাকিস্তানি সেনারা

এরই ধারাবাহিকতায় পাকিস্তান সেনাবাহিনী কাবুল সরকারের কাছে দাবি জানায় আফগানিস্তানে ঘাঁটি গেড়ে বসা ৭৬ পাকিস্তানি জঙ্গিকে তাদের হাতে হস্তান্তরে। এ ছাড়া গত ১৩ ও ১৫ ফেব্রুয়ারি পাকিস্তানে ভয়াবহ হামলা চালানোর দায় স্বীকারকারী জামাত-উল-আহরার নামের জঙ্গি দলের প্রশিক্ষণশিবিরে হানা দেয় তারা। একই সঙ্গে আফগানিস্তানের সঙ্গে দেশটির সীমান্তও বন্ধ করে দেওয়া হয়।

 

তবে সাবেক ক্রিকেটার ও তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) দলের প্রধান ইমরান খান অভিযোগ করেছেন- সীমান্ত বন্ধ করে দেওয়ার ঘটনা মানবিক বিপর্যয়ের সৃষ্টি করেছে সেখানে।  

প্রসঙ্গত, মোহমান্দ হচ্ছে পাকিস্তানের আধা-স্বায়ত্বশাসিত ৭টি উপজাতি অধ্যুষিত এলাকার একটি যেখানে স্থানীয় এবং বিদেশি জঙ্গিরা শক্ত ঘাঁটি গেড়ে আছে।     

পাকিস্তানি সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া রবিবার রাতের ঘটনায় সেনাদের বীরত্বের প্রশংসা এবং একই সঙ্গে শোক প্রকাশ করেছেন।  


মন্তব্য