kalerkantho


জিন্স পরা নারীদের পাথর বেঁধে সমুদ্রে ডুবিয়ে দেওয়া উচিত : খ্রিস্টান ধর্মগুরু

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২০:০১



জিন্স পরা নারীদের পাথর বেঁধে সমুদ্রে ডুবিয়ে দেওয়া উচিত : খ্রিস্টান ধর্মগুরু

যে সব নারীরা জিন্স পরেন, পুরুষদের পোশাক পরেন, তাঁদের শরীরে পাথর বেঁধে সমুদ্রে ফেলে দেওয়া উচিত। এবার এমনই মন্তব্য করলেন ভারতের এক খ্রিস্টান ধর্মগুরু।

সম্প্রতি একটি টেলিভিশন চ্যানেলে সাক্ষাত্কার দেওয়ার সময় ওই খ্রিস্ট ধর্মগুরু বলেন, পুরুষদেরও যেমন নারীদের পোশাক পরা উচিত নয়। তেমনি নারীও যেন পুরুষদের পোশাক না পরেন, সে দিকে খেয়াল রাখা উচিত।

পাশপাশি তিনি এও বলেন, চার্চে যখন কোনও নারী জিন্স বা ট্রাউজার পরে আসেন হাতে ফোন নিয়ে, তখন সেখান থেকে বেরিয়ে যাওয়ার ইচ্ছে হয় তাঁর।   শুধু তাই নয়, চুল খোলা রেখেও কেন নারীরা চার্চে আসেন, তা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন ওই ধর্ম যাজক।  

এরপরই তিনি বলেন, যে সমস্ত মহিলারা জিন্স পরেন, তাঁদের শরীরে পাথর বেঁধে সমুদ্রে ডুবিয়ে দেওয়া উচিত।   পাশপাশি, যে মহিলারা পাপ করার জন্য পুরুষদের প্ররোচিত করেন, তাঁদেরও সমুদ্রে ডুবিয়ে দেওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেন ওই ধর্মযাজক।

শুনলে অবাক হবেন, ওই ধর্মযাজক দাবি করেন, বাবা-ভাইদের ধর্ষক হয়ে ওঠার জন্য প্ররোচনা নাকি মেয়েরাই দেন। আর ওই ধর্মগুরুর বক্তব্য চাউর হওয়ার পর থেকেই শুরু হয়েছে সমালোচনা। বর্তমান যুগে দাঁড়িয়েও কীভাবে মেয়েদের সম্পর্কে ওই ধরনের মন্তব্য করতে পারেন ওই ধর্মযাজক, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে বিভিন্ন মহলে।


মন্তব্য