kalerkantho


পাকিস্তানের অনিবন্ধিত মাদ্রাসাগুলোই জঙ্গি সরবরাহের উৎস!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১১:১৭



পাকিস্তানের অনিবন্ধিত মাদ্রাসাগুলোই জঙ্গি সরবরাহের উৎস!

বেলুচিস্তানের স্বরাষ্ট্র এবং গোত্রীয় বিষয়ক মন্ত্রী সরফরাজ বুগতি ভয়েস অফ আমেরিকা রেডিওকে এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, হাজারো আফগান তালেবান এখনো পাকিস্তানের প্রদেশ বেলুচিস্তানের ধর্মীয় মাদ্রাসাগুলোতে পড়ছে।

ভয়েস অফ আমেরিকার আফগান সার্ভিসকে বুগতি বলেন, বেলুচিস্তানে প্রচুর সংখ্যক ধর্মীয় মাদ্রাসা আছে যেগুলোতে আফগান তালেবানরা পড়াশোনা করছেন। আর এসব মাদ্রাসার অনেকগুলোই আফগান তালেবানের মালিকানায় আছে।

ওই প্রতিবেদনে দাবি করা হয়, পাকিস্তানে ৩০ হাজারেরও বেশি মাদ্রাসা রয়েছে। এগুলোর বেশির ভাগই আইনগতভাবে বৈধ এবং কঠোরভাবে ধর্মীয় শিক্ষার কারিকুলাম মেনে চলে। কিন্তু এসব মাদ্রাসার হাজারো মাদ্রাসা সরকারিভাবে নিবন্ধিত নয়। আর সরকারি তালিকার বাইরে থাকা এই মাদ্রাসাগুলোই 'জঙ্গি ও তালেবানদের লোকবল সরবরাহের উৎস'।

বেলুচিস্তানের ধর্মবিষয়ক মন্ত্রী আমিন-উল-হাসনাত শাহ বলেন, এসব মাদ্রাসার বেশির ভাগেরই অর্থ আসে বিদেশ থেকে। বিশেষকরে আরব দেশগুলো থেকে।

শাহ বলেন, নিবন্ধনের আওতায় আনা এবং সিলেবাস পরিবর্তনের মাধ্যমে সরকার এই মাদ্রাসাগুলোর শিক্ষাব্যবস্থায় সংস্কার আনার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। আর তা ছাড়া এই মাদ্রাসাগুলোর ওপর গোপন নজরদারিও করা হবে।

পাকিস্তানের জাতীয় সন্ত্রাসবাদবিরোধী কর্তৃপক্ষের প্রধান ইহসান গনি বলেন, সরকার নতুন একটি সন্ত্রাসবাদবিরোধী নীতি প্রণয়ন করছে। ওই নীতির অধীনে মাদ্রাসা শিক্ষাব্যবস্থায় সংস্কার আনার সুপারিশ করা হবে। তিনি বলেন, সরকার সব অনিবন্ধিত মাদ্রাসাগুলোকে সরকারি নিবন্ধনের আওতায় আনার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

সূত্র : দ্য ডন


মন্তব্য