kalerkantho


বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরেই 'ভার্জিন ট্রি'!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১০:২৬



বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরেই 'ভার্জিন ট্রি'!

ভ্যালেন্টাইন ডে পালিত হলো বিশ্বজুড়ে। প্রেমিক প্রেমিকারা কিংবা অ-প্রেমিকজনরা নানাভাবে এই বিশেষ দিনটি পালন করেছে। তবে ভারতের দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ে একটু আলাদাভাবেই পালিত হলো দিনটি। হিন্দু কলেজ হোস্টেলের আবাসিকদের প্রেম দিবস পালন কারও সঙ্গেই মেলানো যাবে না। বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরেই রয়েছে একটি বাবলা গাছ। সেটিকে ছাত্রছাত্রীরা বলেন, 'ভার্জিন ট্রি'।

প্রেম দিবসে দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ের এমন ছবি অবশ্য নতুন নয়। প্রতিবছরই এখানে কোনো না কোনো অভিনেত্রীর পূজা হয়। এবার সেই জায়গা পেলেন অভিনেত্রী দিশা পাটনি। প্রতিবছর ১৪ ফেব্রুয়ারি এই গাছে বেলুন আর পানি ভরা কনডমের মালা দিয়ে সাজানো হয়। সেই সঙ্গে কোনো সাহসী অভিনেত্রীকে বেছে নিয়ে তাকে 'দমদমি মাঈ' হিসেবে পূজা করা হয়।

বিশ্বাস, এই পূজা নাকি প্রেম করার 'দম' (ক্ষমতা) দেয় শিক্ষার্থীদের।

সেই প্রথা অনুযায়ী এবারের ভ্যালেন্টাইন্স ডে তে দিল্লি বিশ্ববিদ্যালয়ে 'ভার্জিন ট্রি'তে ঝোলানো হয় দিশা পাটনির ছবি। এর পরে চলে উল্লাস। কে ‌‌'দমদমি মাঈ' নির্বাচন করেন? সেটা খুব সহজ নয়। রীতিমতো ভোটাভুটি হয় আবাসিক শিক্ষার্থীদের মধ্যে। এই বছরে দিশা পাটনির প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন অভিনেত্রী নার্গিস ফাকরি। প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীরা নার্গিসকে চাইলেও দ্বিতীয় ও তৃতীয় বর্ষের ছাত্রছাত্রীদের ভোটে জিতে যান দিশা।

এর আগে 'দমদমি মাঈ' হওয়ার সম্মান পেয়েছেন বলিউডের অনেক নায়িকা। এর মধ্যে রয়েছেন সানি লিওন, প্রিয়াঙ্কা চোপড়া, দীপিকা পাড়ুকোনরা। এই রীতির পিছনে রয়েছে এক অবাক করা যুক্তি। শিক্ষার্থীরা মনে করেন, এই পূজায় যোগ দিলে ৬ মাসের মধ্যে প্রেম আসে!


মন্তব্য