kalerkantho


কান্নায় বিরক্ত হয়ে তিন দিনের শিশুর পা ভেঙে দিল ওয়ার্ড বয়!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:২২



কান্নায় বিরক্ত হয়ে তিন দিনের শিশুর পা ভেঙে দিল ওয়ার্ড বয়!

বয়স মাত্র তিন দিন। শ্বাসকষ্টের সমস্যায় কষ্ট পাচ্ছিল সদ্যোজাত। চিকিৎসার জন্য তাকে ভর্তি করা হয় একটি বেসরকারি শিশু হাসপাতালে। শ্বাসকষ্টের কারণের থামছিল না কান্না। আর এই অবিরাম কান্না বেশিক্ষণ সহ্য করতে পারেনি পাহারায় থাকা হাসপাতালের ওয়ার্ড বয়। বিরক্ত হয়ে দুমড়ে-মুচড়ে ভেঙে দেয় সদ্যোজাতের পা! বীভৎস এই ঘটনাটি ঘটেছে উত্তরাখণ্ডের রুরকি’র একটি বেসরকারি হাসপাতালে।

২৫ জানুয়ারি জন্ম হয় শিশুটির। কিন্তু জন্ম থেকেই তার শ্বাসকষ্ট শুরু হওয়ায় তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এর পর ২৮ জানুয়ারি সকালের দিকে সদ্যোজাতর কান্না থামাতে প্রহরারত ওয়ার্ড বয় ঘরে ঢুকে শিশুটির পা ভেঙে দেয় বলে অভিযোগ। যদিও সে সময় এই ঘটনা সম্পর্কে কোনো কিছুই জানা যায়নি। শিশুটিকে অন্য একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে জানা যায় যে তার পা ভেঙে গেছে।

তখন ওই বেসরকারি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন শিশুটির বাবা। তদন্তে নেমে হাসপাতালের ভিডিও ফুটেজ খতিয়ে দেখে পুলিশ। আর তাতেই নৃশংস এই ঘটনার ছবি সবার সামনে আসে। সে দিনের এই ঘটনার ভিডিও বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে দেখানোর পর থেকেই হাসপাতালের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। হাসপাতালের সামনে বিক্ষোভ শুরু হয়েছে। অবিলম্বে অভিযুক্তকে কঠোর শাস্তি দেয়ার দাবি জানিয়েছে বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। হরিদ্বারের এসএসপি কেভি কৃষ্ণকুমার জানিয়েছেন, অভিযুক্তকে ইতিমধ্যেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

সূত্র: আনন্দবাজার


মন্তব্য