kalerkantho


‘একদিন কি খাবার বা পানি ছাড়া ছিলেন কখনও?’ ট্রাম্পকে সিরীয় বালিকা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২৩:৩৩



‘একদিন কি খাবার বা পানি ছাড়া ছিলেন কখনও?’ ট্রাম্পকে সিরীয় বালিকা

"মি: ডোনাল্ড ট্রাম্প, আপনাকে কি কখনও খাবার বা পানি ছাড়া ২৪ ঘণ্টা ক্ষুধার্ত পেটে থাকতে হয়েছে? শুধু একবার সিরিয়ার শরণার্থী ও শিশুদের কথা ভেবে দেখুনতো"- যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের কাছ এই প্রশ্ন করেছে টুইট করে খ্যাতি পাওয়া সিরিয় বালিকা বানা আলাবেদ।
২রা ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার রাত ১২টা ৫২ মিনিটে বানা তার টুইটারে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে উদ্দে‍শ্য করে নতুন এই টুইটটি করে।


সিরিয়ার অবরুদ্ধ আলেপ্পো শহর থেকে বানা আলাবেদ মায়ের সহায়তায় নিয়মিত টুইট করত। ওইসময় তার টুইটার অ্যাকাউন্ট বিশ্বজোড়া খ্যাতি পায়, 'আলেপ্পোর টুইটার বালিকা' হিসেবে খ্যাতিও পেয়ে যায় বানা।
গত ডিসেম্বর মাসে আলেপ্পো থেকে যখন আটকে পড়া মানুষ জনকে উদ্ধার করা হচ্ছিল তখন পরিবারের সাথে উদ্ধার পায় বানা আলাবেদও।
এখন সে তুরস্কে বসবাস করছে।
এর আগে বানা মি: ট্রাম্পের উদ্দেশ্যে এক খোলা চিঠিতে লিখেছিল "সিরিয়ার শিশুদের জন্য আপনাকে কিছু করতেই হবে। কারণ তারা আপনার সন্তানদের মতোই। তারাও আপনার মতো শান্তিতে থাকার অধিকার রাখে"।
সিরিয়াসহ সাতটি মুসলিমপ্রধান দেশের নাগরিকদের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে মি: ট্রাম্পের নির্বাহী আদেশের প্রতিক্রিয়াও জানিয়েছে বানা আলাবেদ।
টুইটারে বানা লিখেছিল, "প্রিয় ট্রাম্প শরণার্থীদের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করার বিষয়টি খুবই দুঃখজনক। আর এটি যদি ভালো সিদ্ধান্তই হয় তাহলে আপনার জন্য আমার পরামর্শ হলো অন্য দেশগুলোতে শান্তি স্থাপন করুন"।
মুসলিম দেশগুলোর নাগরিকদের ওপর নিষেধাজ্ঞা নিয়ে আলোচনা-সমালোচনার মধ্যে মি: ট্রাম্প আবার নিজের যুক্তি তুলে ধরে টুইটারে বলেছিলেন "খারাপ উদ্দেশ্য নিয়ে আসা খারাপ লোকদের নিজের দেশের বাইরে রাখাই আমার উদ্দেশ্য"।
এরও প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে বানা আলাবেদ।
গতকাল অর্থাৎ ১লা ফেব্রুয়ারি ২০১৭, বানার টুইটারে ডোনাল্ড ট্রাম্পরে পোস্ট শেয়ার করে লেখা- "আমি কি সন্ত্রাসী?"

- বিবিসি বাংলা


মন্তব্য