kalerkantho

শনিবার । ৩ ডিসেম্বর ২০১৬। ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


শিল্পীদের নয়, সন্ত্রাসবাদীদের নিষিদ্ধ করতে হবে : তসলিমা নাসরিন

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২০ অক্টোবর, ২০১৬ ০২:৩১



শিল্পীদের নয়, সন্ত্রাসবাদীদের নিষিদ্ধ করতে হবে : তসলিমা নাসরিন

ভারতে পাক শিল্পী বিতর্কে এবার মুখ খুললেন নির্বাসিত লেখিকা তসলিমা নাসরিন। পাক শিল্পীদের নিষিদ্ধ করার দাবির তীব্র বিরোধিতা করে তিনি বলেছেন, শিল্পীদের নয়, সন্ত্রাসবাদীদের নিষিদ্ধ করতে হবে।

তিনি সতর্ক করে বলেছেন, এ ধরনের ধারণা হিটলারের ‘বিশুদ্ধ রক্তে’র ধারণার মতোই। খবর এবিপির।

উল্লেখ্য, বর্তমানে ভারতে রয়েছেন তসলিমা। একাধিক ট্যুইটের মাধ্যমে তিনি বলেছেন, শিল্পীদের কোনও দেশ হয় না। শিল্পের যেখানে সম্মান সেখানেই থাকেন শিল্পীরা।

তসলিমা বলেছেন, ‘ভারতে এখন পাক শিল্পীদের নিষিদ্ধ করার কথা বলা হচ্ছে। পরে তো বাংলাদেশি লেখকদেরও নিষিদ্ধ করার দাবি উঠবে। তোমরা তোমাদের নিয়েই থাকবে। বিশুদ্ধ ভারতীয় রক্ত। হিটালারের ধারণাও ছিল রক্তের বিশুদ্ধতা’।

উল্লেখ্য, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় জার্মান স্বৈরতন্ত্রী শাসক হিটালার বিশুদ্ধ আর্য রক্তের শ্রেষ্ঠত্বের কথা বলতেন। হিটলারের নাৎসি জমানায় এই জাতিগত বিদ্বেষের জেরে লক্ষ লক্ষ ইহুদি নিধন করা হয়েছিল।

উল্লেখ্য, পাক শিল্পীদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভের জেরে বলিউডের পরিচালক করণ জোহর গতকালই জানিয়েছিলেন, ভবিষ্যতে পাক শিল্পীদের নিয়ে কাজ করবেন না তিনি।

উরি হামলার পর বলিউডে পাক শিল্পীদের নিয়ে কাজ করা যাবে না বলে ফতোয়া জারি করেছিল এমএনএস। তারা পাক শিল্পীদের ভারত ছেড়ে যাওয়ারও হুমকি দেয়। পাশাপাশি, পাক শিল্পী অভিনীত ছবির মুক্তি আটকে দেওয়া হবে বলেও জানায় তারা।

ইন্ডিয়ান মোশন পিকচার্স অ্যাসোসিয়েশনও পাক শিল্পীদের নিয়ে কাজ না করার কথা জানিয়েছে।

এছাড়াও সিনেমা ওনার্স ইক্সিবিটরস অ্যাসোসিয়েশন অফ ইন্ডিয়াও মহারাষ্ট্র, গুজরাত, কর্নাটক ও গোয়ায় পাক শিল্পীদের অভিনীত সিনেমা না দেখানোর কথা ঘোষণা করেছে।

তসলিমা তিন তালাক বিতর্কেও নিজের মতামত জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, কোনও ধর্মীয় আইনই ভালো নয়। ধর্ম ও রাষ্ট্রের মধ্যে ফারাক থাকা উচিত। সমতা ও ন্যায়ের ভিত্তি অভিন্ন দেওয়ানি বিধি অবিলম্বে প্রয়োজন বলেও তসলিমা মন্তব্য করেছেন।


মন্তব্য