kalerkantho

শনিবার । ২১ জানুয়ারি ২০১৭ । ৮ মাঘ ১৪২৩। ২২ রবিউস সানি ১৪৩৮।


কাশ্মীরে ভারতীয় সেনাঘাঁটিতে ফের হামলা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৩ অক্টোবর, ২০১৬ ১০:১৫



কাশ্মীরে ভারতীয় সেনাঘাঁটিতে ফের হামলা

ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের একটি সেনাঘাঁটিতে ফের হামলার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় অন্তত একজন নিহত ও বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। নিহত ব্যক্তি একজন বিএসএফ জওয়ান বলে জানা গেছে। রবিবার স্থানীয় সময় রাত সাড়ে ১০টার দিকে কাশ্মীরের শ্রীনগর পাড়ামোল্লা এলাকায় অবস্থিত ঘাঁটিতে এ হামলার ঘটনা ঘটে। ধারণা করা হচ্ছে, জঙ্গিরা এ হামলা চালিয়েছে।

স্থানীয় পুলিশ কর্মকর্তা সৈয়দ জাভেদ মুস্তবা গিলানির বরাত দিয়ে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো এ তথ্য জানিয়েছে। সৈয়দ জাভেদ মুস্তবা গিলানি জানান, তাৎক্ষণিকভাবে হামলাকারীদের পরিচয় জানা যায়নি। তবে, তারা সামরিক ঘাঁটিতে প্রবেশের চেষ্টা করেছিল। এ সামরিক ঘাঁটিটি স্থানীয় হেডকোয়ার্টার হিসেবে ব্যবহৃত হতো।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া স্থানীয় কর্তৃপক্ষের বরাত দিয়ে জানায়, হামলাকারীরা দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে এ হামলা চালায়। তারা সংখ্যায় চারজন বা এর অধিক ছিল।

এদিকে, ভারতীয় অপর একটি সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি দেশটির সামরিক বাহিনীর এক কর্মকর্তার বরাত দিয়ে জানায়, প্রায় দুই ঘণ্টা যাবৎ হামলাকারীদের ও সামরিক বাহিনীর সদস্যদের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। তবে ঘটনাস্থল ও এর আশপাশ এলাকায় অভিযান অব্যাহত রয়েছে। গত ১৮ সেপ্টেম্বর কাশ্মীরের উরি সেনাঘাঁটিতে সন্ত্রাসী হামলা ১৮ ভারতীয় সৈন্য নিহত হওয়ার প্রেক্ষিতে নয়া দিল্লি-ইসলামাবাদ সম্পর্কে উত্তেজনা এখন চরমে। দুই পক্ষই সীমান্তে সেনা মোতায়েন ও তৎপরতা বাড়িয়েছে। দফায় দফায় যুদ্ধবিমানের মহড়া চালাচ্ছে পাকিস্তান। আর ভারতও প্রস্তুত করছে তাদের যুদ্ধবিমানকে।

এ ছাড়া ২৮ সেপ্টেম্বর রাতে নিয়ন্ত্রণ রেখার ওপারে পাকিস্তান ভূখণ্ডের ২ কিলোমিটার ভেতরে ঢুকে সার্জিক্যাল স্ট্রাইক (সুনির্দিষ্ট টার্গেটে হামলা) চালায় ভারতীয় সামরিক বাহিনী। এতে দুই পাকিস্তানি সৈন্য ও ৩৮ জঙ্গি নিহত হয়।

এরপর ২৯ সেপ্টেম্বর দিনগত রাতে পাকিস্তানের পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, তাদের সেনাবাহিনীর পাল্টা আঘাতে ১৪ ভারতীয় সৈন্য নিহত হয়েছে, এমনকি তারা আটকও করেছে এক ভারতীয় সৈন্যকে। যদিও তা নাকচ করে দিয়েছে ভারতীয় সেনাবাহিনী।

 


মন্তব্য