kalerkantho

শনিবার । ৩ ডিসেম্বর ২০১৬। ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


রাজনীতি থেকে দূরে থাকুন, কানহাইয়াকে বেঙ্কাইয়া

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৫ মার্চ, ২০১৬ ০০:০৬



রাজনীতি থেকে দূরে থাকুন, কানহাইয়াকে বেঙ্কাইয়া

কানহাইয়া কুমারকে কটাক্ষ, বিদ্রুপ কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বেঙ্কাইয়া নাইডুর। গতকাল অন্তর্বর্তী জামিনে ৬ মাসের জন্য ছাড়া পেয়ে জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয় (জেএনইউ) ছাত্র সংসদের সভাপতি কানহাইয়া ক্যাম্পাসে ফিরেই তীব্র আক্রমণ করেছেন নরেন্দ্র মোদি সরকারকে।

রাষ্ট্রদ্রোহিতা মামলায় অভিযুক্ত কানহাইয়া ভারত থেকে আজাদি নয়, বরং ভারতের মধ্যে থেকেই নানা সমস্যা থেকে আজাদি চান বলে জানিয়েছেন, ভারতীয় সংবিধানে বিশ্বাসী, এও বলেছেন। কিন্তু তার পাশাপাশি তীব্র কটাক্ষে বিদ্ধ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে।

তার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই তাঁকে আক্রমণ করলেন কেন্দ্রীয় সংসদীয় মন্ত্রী। কানহাইয়া যেন তাঁকে ঘিরে তৈরি হওয়া আবেগ, প্রচারের আলোয় থাকার আনন্দ উপভোগ না করে ৯ ফেব্রুয়ারির মতো ঘটনা, কার্যকলাপ বিশ্ববিদ্যালয়ে আর না হয়, তা নিশ্চিত করতে সেখানকার কর্তৃপক্ষকে সহযোগিতা করেন, সেই পরামর্শ দিয়েছেন বেঙ্কাইয়া। ছাত্রনেতার প্রতি তাঁর কটাক্ষ, উনি তো দারুণ প্রচার উপভোগ করছেন। কী হয়েছে ওখানে? তিনি ভারত-বিরোধী স্লোগান থেকে নিন্দা করুন। নিজেকে তা থেকে বিচ্ছিন্ন করুন। এ ধরনের কাজকর্ম যাতে দমন করা যায়, সে জন্য কর্তৃপক্ষকে সহায়তা দিন।

সেইসঙ্গে শিক্ষার্থীদের কী করণীয়, তাও বলেছেন বেঙ্কাইয়া। তাঁর বক্তব্য, ওঁরা পড়াশোনা করুন, রাজনীতি থেকে দূরে থাকুন। আর রাজনীতি যদি করতেই হয়, তাহলে পড়াশোনা ছেড়ে রাজনীতিতে যোগ দিন।
কানহাইয়াকে কটাক্ষ করে তাঁর আরও মন্তব্য, উনিও চাইলে যে কোনো রাজনৈতিক দলে যেতে পারেন। আর ওনার প্রিয় দল তো সংসদে এক অঙ্কে এসে ঠেকেছে! সেই দলেই না হয় যান। তবে ছাত্র রাজনীতির ভেক ধরে যেন আফজল গুরু, ইয়াকুব মেমন, মকবুল বাটদের হয়ে গলা না ফাটান। ওই তিনজনই দেশ-বিরোধী।

সূত্র: এবিপি আনন্দ


মন্তব্য