kalerkantho

রবিবার। ৪ ডিসেম্বর ২০১৬। ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


এবার পাস করবেন, আশাবাদী ৪৬বার মেট্রিক ফেল করা ছাত্র

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৪ মার্চ, ২০১৬ ১৩:২৬



এবার পাস করবেন, আশাবাদী ৪৬বার মেট্রিক ফেল করা ছাত্র

ভারতের রাজস্থানের শিবচরণ যাদব ৪৬বার মেট্রিক পরীক্ষায় ফেল করার পরও হাল ছাড়েননি। স্কুলের গণ্ডি পার হতে এ বছর ৪৭তম বারের মতো মেট্রিকে বসছেন ৭৭ বছর বয়সী এই ছাত্র।

টাইমস অব ইন্ডিয়ার এক খবরে বলা হয়, আলাওয়ে জেলার খোহারি গ্রামের বাসিন্দা যাদব প্রথমবার দশম শ্রেণির বোর্ড পরীক্ষায় বসেছিলেন ১৯৬৮ সালে। বছরের পর বছর ব্যর্থতায় এতটাই জেদ চেপে যায় যে তিনি পণ করে বসেন, মেট্রিক পাস না করে বিয়েই করবেন না। যাদব আশা করছেন, এ বছর মার্চেই তার অপেক্ষার অবসান ঘটবে, হাতে আসবে সার্টিফিকেট; ঘরে আসবে বউ। ''প্রতিবারই কোনো না কোনো সাবজেক্টে ফেল করে বসেছি। গণিত আর বিজ্ঞানে পাস করেছি তো হিন্দি আর ইংরেজিতে পেরে উঠিনি। এবার আমি আশাবাদী, সব বিষয়েই পাস করতে পারব,'' যাদবকে উদ্ধৃত করে লিখেছে টাইমস অব ইন্ডিয়া।

২১ বছর আগে ১৯৯৫ সালের পরীক্ষায় প্রায় হয়েই গেছিল। শেষ পর্যন্ত ধরাশায়ী হতে হয়েছিল গণিতে। তবে সাম্প্রতিক বছরগুলোর ফলাফল 'অতটা' ভালো না।

গত বছর যাদব কেবল পাস করেছেন সামাজিক বিজ্ঞানে। আর তার আগের বছর সব সাবজেক্টেই ফেল।
তারপরও যাদব আশাবাদী, কারণ এবার তার প্রস্তুতি আগের চেয়ে ভালো। ''এইবার আমি কয়েকজন স্কুল শিক্ষকের কাছে পড়েছি। ''

টাইমস অব ইন্ডিয়া লিখেছে, গত ৩০ বছর ধরে নিজের পৈত্রিক ভিটায় একাই থাকেন যাদব। তার বয়স যখন মাত্র দুই মাস, চলে গেলেন মা। ১০ বছর বয়সে বাবাকেও হারান। এরপর চাচাদের পরিবারেই তার বেড়ে ওঠা।

এই বৃদ্ধ বয়সে যাদবের লেখাপড়া ছাড়া আর কোনো কাজ নেই। সরকারের প্রবীণ ভাতা আর গ্রামের মন্দিরের প্রসাদেই পেট চলে যায়।

তার এই অধ্যবসায় দেখে গ্রামের অনেকে হাসাহাসি করলেও সবাই তেমন নয়। যাদবকে খাতা কলম কিনে দিয়ে উৎসাহও দেন কেউ কেউ।

একই গ্রামের বাসিন্দা রামকেশ মীনা বলেন, ''উনি পরীক্ষা দিতে যাচ্ছে এটা দেখার মজাই আলাদা। পরীক্ষার আগে অন্য সব ছাত্রের মতোই উনি মন্দিরে যান পূজা দিতে। এবার উনি পাস করে গেলে আমরা সবাই খুশি হব। '' আর মেট্রিক পাস করতে পারলে যাদবের পরের কাজটি হবে পাত্রী খোঁজা।
''এ বছর আমি বিয়ে করব। পাত্রী একজন পেয়েই যাব,'' বলেন ৭৭ বছর বয়সী এই কুমার।


মন্তব্য