kalerkantho


মুখোমুখি প্রতিদিন

বাংলাদেশে রাগবিতে অনেক বিনিয়োগ লাগবে

৯ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



বাংলাদেশে রাগবিতে অনেক বিনিয়োগ লাগবে

তিনি দু-এক বছর পর পর ঢাকায় আসেন। এবার এসে সাফির ভূঁইয়া আবিষ্কার করেছেন বাংলাদেশ রাগবি ফেডারেশন। রাগবি তাঁর প্যাশন, লন্ডনে খেলেন অ্যামেচার পর্যায়ে। এখানে রাগবি খেলা হয়, এই দেখে তিনি খুব খুশি। গতকাল বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের তিনি দেখেছেন এবং ফেডারেশনের কার্যক্রম পর্যবেক্ষণ করেছেন। এর পরই তিনি কথা বলেছেন কালের কণ্ঠ স্পোর্টসের মুখোমুখি হয়ে

 

কালের কণ্ঠ স্পোর্টস : ইংল্যান্ডপ্রবাসী হলেও আপনি তো বাংলা ভালো বোঝেন দেখছি।

সাফির ভূঁইয়া : বাংলা খুব ভালো বলতে পারি না। আসলে আমার দাদাই প্রথম ইংল্যান্ডে গিয়েছিলেন। ওখানে আমাদের পরিবারের দ্বিতীয় প্রজন্মের সদস্য আমি। ঘরে বেশির ভাগ সময় ইংরেজি চললেও বাংলায় কথাবার্তা একেবারে বন্ধ নয়। এক-আধটু হয়, তাই বাংলাটা বুঝি। তা ছাড়া বাংলাদেশে আমি বেশ কয়েকবার এসেছি। এবারও বেড়াতে এসেছি আমি, এখানে ভালো লাগে আমার।

প্রশ্ন : বাংলাদেশে রাগবি হাঁটি হাঁটি পা পা অবস্থায় আছে। এ দেশে খেলাটিকে কেমন দেখছেন?

সাফির : এই প্রথম আমি বাংলাদেশ রাগবি ফেডারেশনে এসেছি। দেখেশুনে যা মনে হয়েছে, ফেডারেশন চেষ্টা করছে খেলাটার উন্নতির জন্য। এখনো সে রকম খেলোয়াড় তৈরি হয়নি। আসলে উন্নতির জন্য অবকাঠামো দরকার। ইংল্যান্ডে যেমন রাগবির ক্লাব কালচার আছে, ভালো সিস্টেম আছে। সেটা এখানে তৈরি হতে অনেক সময় লাগবে। আরেকটা জিনিস খুব দরকার, সেটা হলো অর্থ। শুরুর সময়ই অনেক টাকা বিনিয়োগ করতে হয় খেলার পেছনে।

প্রশ্ন : ইংল্যান্ডের বাস্তবতা আমাদের দেশে নেই। ওখানে রাগবি বেশ জনপ্রিয় যেটা এখানে নেই...

সাফির : আমাদের দেশে ফুটবলের পরে রাগবির জনপ্রিয়তা। স্কুল পর্যায় থেকে এই খেলার চর্চা হয়, আমি অবশ্য কলেজ থেকে শুরু করেছি। খেলাটিকে এগিয়ে নিতে হলে স্কুল থেকে শুরু করতে হবে, বাচ্চাদের হাতে খেলাটা ধরিয়ে দিতে হবে। ভালো কোচিংয়ের মাধ্যমে খেলাটির প্রাথমিক জ্ঞান দিয়ে তাদের উদ্বুদ্ধ করতে হবে। কারণ সীমিত খেলোয়াড় দিয়ে কখনো খেলাটিকে জনপ্রিয় করা যায় না।

প্রশ্ন : কিন্তু এই খেলা খেলতে অনেক শক্তি লাগে। তাই না?

সাফির : শক্তিশালী খেলোয়াড় হলে ভালো। তবে ভালো শরীর থাকাটা অত্যাবশ্যকীয় শর্ত নয়। ছোট শরীরেও দারুণ রাগবি খেলা যায়। যেমন ওয়েলসের শেন উইলিয়ামস, তাঁর কাছে টেকনিকটাই আসল কথা।

প্রশ্ন : আপনি কি পেশাদার রাগবি খেলোয়াড়?

সাফির : না। আমি অ্যামেচার রাগবি খেলি, একটা ক্লাবের হয়ে খেলি। কলেজ থেকে খেলাটা আমার প্যাশন কিন্তু পেশা নয়। কোনোদিন এটাকে পেশা হিসাবে নেব না।

প্রশ্ন : বাংলাদেশ জাতীয় দলের হয়ে খেলার সুযোগ আছে আপনার। প্রস্তাব পেলে কি গ্রহণ করবেন?

সাফির : এটা কখনো সম্ভব নয়। আমার শরীরে বাঙালির রক্ত বইলেও আমার দেশ ইংল্যান্ড।



মন্তব্য