kalerkantho


বিশ্বকাপ কর্নার

১৭ জুলাই, ২০১৮ ০০:০০



বিশ্বকাপ কর্নার

বেনজিমার অভিনন্দন

বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স দলকে অভিনন্দন জানিয়েছেন জাতীয় দলের বাইরে থাকা করিম বেনজিমা। রবিবার ক্রোয়েশিয়াকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর দলকে অভিনন্দন জানিয়ে রিয়াল মাদ্রিদের এ স্ট্রাইকার টুইটারে লিখেছেন, ‘অভিনন্দন, ছেলেরা।’ ক্লাব ক্যারিয়ারটা যথেষ্ট সমৃদ্ধ করিম বেনজিমার। রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে লিগ, কোপা দেল রে, উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগ, উয়েফা সুপার ও ফিফা ক্লাব বিশ্বকাপ জিতেছেন। সে তুলনায় আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে ট্রফির সংখ্যা শূন্যই বলা যায়। একাধিকবার বিশ্বকাপ ও ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপে খেললেও অর্জনের খাতা ফাঁকাই রয়ে গেছে। আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে এখনো অবসর নেননি তিনি। তবে ২০১৫ সালের অক্টোবরের পর আর জাতীয় দলের জার্সি গায়ে চড়ানো হয়নি। বিশ্বকাপে তাঁকে বাদ দিয়ে দিদিয়ের দেশম যে সাফল্য পেয়েছেন তাতে করে বেনজিমার হয়তো আর জাতীয় দলে ফেরা হবে না।

 

পুতিনের অভিযোগ

বিশ্বকাপের সময় রাশিয়া দুই কোটি পঞ্চাশ লাখ বার সাইবার হামলার শিকার হয়েছে বলে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন অভিযোগ করেছেন। তবে এ হামলার পেছনে কারা রয়েছে সে ব্যাপারে কোনো কিছু জানাননি। গত রবিবার নিরাপত্তা সংস্থাগুলোর সঙ্গে আলোচনায় পুতিন, ‘বিশ্বকাপের সময় রাশিয়াতে প্রায় দুই কোটি পঞ্চাশ লাখ সাইবার হামলা ও অন্যান্য অপরাধ হয়েছে। এসব অপরাধ বিশ্বকাপের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট।’ হামলার সংখ্যা জানালেও এসব হামলার ধরন এবং কোথা থেকে এই হামলা চালানো হয়েছে সে ব্যাপারে তিনি কিছু বলেননি। গত ১৪ জুন থেকে ১৫ জুলাই পর্যন্ত রাশিয়ার ১১টি শহরের ১২টি বিশ্বকাপের খেলা অনুষ্ঠিত হয়।

 

আদিল রামির অবসর

ফ্রান্সের ডিফেন্ডার আদিল রামি আন্তর্জাতিক ফুটবলকে বিদায় জানিয়েছেন। ক্রোয়েশিয়াকে হারিয়ে দল চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পরই আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন ফ্রান্সের এ ডিফেন্ডার। ২০১০ সালে প্রথমবার জাতীয় দলের জার্সি গায়ে চড়ানো আদিল মোট ৩৫টি ম্যাচ খেলেছেন। ৩২ বছর বয়সী আদিল বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য হলেও কোচ দিদিয়ের দেশমের কাছে অনেকটা উপেক্ষিত ছিলেন। টুর্নামেন্টে একবারের জন্যও মাঠে নামার সুযোগ হয়নি তার। টিএফআইকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে আদিল রামি, ‘জাতীয় দলে খেলার সম্ভাবনা আমার জন্য শেষ হয়ে গেছে। বিশ্বকাপে যদিও আমি খেলার সুযোগ পায়নি তবে আমি সব সময়ের জন্য পুরো সময় খেলার জন্য প্রস্তুত ছিলাম। আমি প্রতিদিন দুইবার অনুশীলন করেছি। দলের পরিবেশও ছিল অসাধারণ। আমি ফ্রান্স দলের পরিবেশ এতটা ভালো কখনো দেখিনি।’

 

শূন্য হাতে অলিভিয়ের জিরদ!

ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ফাইনালে ৪-২ গোলে পাওয়া জয়ে ফ্রান্সের হয়ে গোল করেছেন পল পগবা, আন্তোয়ান গ্রিয়েজমান ও কিলিয়ান এমবাপ্পে। ফ্রান্সের পাওয়া অন্য গোলটি ছিল ওন গোল। চার গোলে পাওয়া জয়ে দলের মূল ও অভিজ্ঞ স্ট্রাইকার অলিভিয়ের জিরদের কোনো গোল নেই। শুধু তা-ই নয়, পুরো টুর্নামেন্টে কোনো গোলের দেখা পাননি দলের হয়ে সবচেয়ে বেশি গোল করা জিরদ। এমনকি প্রতিপক্ষ গোলরক্ষককে পরীক্ষায় ফেলতে পারে এমন কোনো শটও পোস্টে নিতে পারেননি। অথচ দলের হয়ে সাত ম্যাচেই মাঠে নেমেছেন তিনি, খেলেছেন ৫৬৪ মিনিট। গোলদাতার তালিকায় নাম লেখাতে না পারলেও গ্রিয়েজমান ও এমবাপ্পের মধ্যে যোগসূত্র তৈরিতে বড় ভূমিকা রেখেছেন।



মন্তব্য