kalerkantho


শঙ্কা উড়িয়ে সেমিফাইনালে সেরেনা উইলিয়ামস

১২ জুলাই, ২০১৮ ০০:০০



মা হওয়ার পর প্রথম উইম্বলডনে অংশ নিয়েই সেমিফাইনালে পৌঁছেছেন সেরেনা উইলিয়ামস। উইম্বলডনে এটি তাঁর ১১তম সেমিফাইনাল। গ্র্যান্ড স্লামের গত ৫০ পঞ্চাশ বছরের ইতিহাসে চতুর্থ মা হিসেবে শিরোপা জেতার হাতছানি এখন তাঁর সামনে। আর দুটি ম্যাচ জিতলেই বেলজিয়ামের কিম ক্লিস্টার্স এবং অস্ট্রেলিয়ার ইভোন গোলাগং এবং মার্গারেট কোর্টের পাশাপাশি তিনিও মা হিসেবে গ্র্যান্ড স্লাম জয়ের কীর্তি গড়বেন।

আগামী শনিবার উইম্বলডনে মেয়েদের ফাইনাল। তার আগে আজ সেমিফাইনালে সেরেনাকে লড়তে হবে জার্মানির জুলিয়া জর্জেসের বিপক্ষে। ত্রয়োদশ বাছাই জর্জেসের বিপক্ষে সেরেনার রয়েছে শতভাগ সাফল্য। তিন ম্যাচের তিনটিতে জয় পেয়েছেন ৩৬ বছর বয়স্ক সেরেনা। এদিকে মঙ্গলবার কোয়ার্টার ফাইনালে তিনি ইতালির ক্যামিলা গিওর্গির বিপক্ষে জয় পেয়েছেন। এ জয় তাঁকে উইম্বলডনের দশম ফাইনালের পথে আরো এক ধাপ এগিয়ে দিয়েছে।

একের পর এক জয়ে শেষ চারে পা রাখলেও সেরেনার জন্য কোয়ার্টার ফাইনাল ম্যাচটি মোটেও সহজ ছিল না। র‍্যাংকিংয়ের ৫২তম বাছাই খেলোয়াড় গিওর্গি তাঁকে কঠিন পরীক্ষায় ফেলে দিয়েছিলেন। প্রথম সেট ৬-৩ গেমে জিতে নিয়ে সেরেনাকে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়েছিলেন। শেষ পর্যন্ত সাত উইম্বলডন জেতা সেরেনা পরের দুই সেট ৬-৩ ও ৬-৪ গেমে জিতে নেন। ঘাসের কোর্টে এটা ছিল শততম জয়। সন্তানভাগ্যটা ভালোই বলতে হবে সেরেনার। সেমিফাইনালে পৌঁছেছেন অথচ শীর্ষ ৪০ বাছাই কোনো খেলোয়াড়ের মুখোমুখি হতে হয়নি তাঁকে। ২০১৩ সাল থেকে এই প্রথম এবং ২০০৫ সাল চতুর্থবারের মতো এই ঘটনা ঘটল। তাঁর জন্য পথটা আরো সহজ করে দিয়েছেন বেশ কয়েকজন বাছাই তারকা। গারবিন মুগুরুজা, মারিয়া শারাপোভা, সিমোনা হালেপ, পেত্রা কেভিতোভা, ভেনাস উইলিয়ামস, ক্যারোলিন ওজনিয়াকি এবং স্লোয়ানে স্টিফেন্সের মতো তারকারা আগেই ছিটকে গেছেন। টুর্নামেন্টে শুধু টিকে আছেন একাদশ বাছাই  অ্যাঞ্জেলিক কেরবার। এএফপি



মন্তব্য