kalerkantho


শাদমানের সেঞ্চুরিতে শাইনপুকুরের জয়

৯ মার্চ, ২০১৮ ০০:০০



ক্রীড়া প্রতিবেদক : তিন ম্যাচে সেঞ্চুরি করেছেন তিনজন। তবে সবার দল জেতেনি। বিকেএসপিতে লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জের ৬ উইকেটের জয়ে বিফলে গেছে খেলাঘর সমাজকল্যাণ সমিতির রবিউল ইসলাম রবির খেলা ১১৬ রানের ইনিংসটি। ফতুল্লায় জুনায়েদ সিদ্দীকের ১১১ বলে ১২৩ রানের ইনিংসে তিন শ ছাড়ানো স্কোর গড়া ব্রাদার্স ১৩১ রানের বিশাল ব্যবধানে হারিয়েছে কলাবাগান ক্রীড়া চক্রকে। আবার মিরপুরে শেখ জামাল ধানমণ্ডির ২৬২ রানের সংগ্রহও শাইনপুকুর ক্রিকেট ক্লাব অনায়াসে পেরিয়ে গেছে ওপেনার শাদমান ইসলামের ১৪৪ রানের হার না মানা ইনিংসে। আগের ম্যাচে ৯৫ রানে আউট হওয়া এ ব্যাটসম্যান এবার ক্যারিয়ার সেরা ইনিংসে ৮ বল বাকি থাকতে দলকে এনে দিয়েছেন ৮ উইকেটের জয়। এটি চলতি প্রিমিয়ার ক্রিকেট লিগে নবাগত দলটির আট ম্যাচে পঞ্চম জয়। এই জয়ে পয়েন্ট তালিকার দুই নম্বরেও উঠে এসেছে তারা।

৩৫ রানে ২ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়া শেখ জামালকে পথ দেখায় তৃতীয় উইকেটে হাসানুজ্জামান (৫৬ বলে ৬১) ও জিয়াউর রহমানের (৮৭ বলে ৭৯) ১১৩ রানের জুটি। তবে পাল্টা জবাবে শাইনপুকুরকে জয়ের ছন্দটা ধরে দেয় ফারদিন হাসান (৩৮) ও শাদমানের ৯৫ রানের ওপেনিং জুটি। এরপর উদয় কাউল (১৩) দ্রুত ফিরে গেলেও সহজ জয়ে শাদমানকে দারুণ সঙ্গ দিয়ে গেছেন তৌহিদ হৃদয়ও (৫০*)। ১২১ রানের অবিচ্ছিন্ন তৃতীয় উইকেট পার্টনারশিপ তাঁদের। মজার ব্যাপার হলো, ২৫৯ রান তাড়া করতে নামা লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জকেও জয়ে ফিরিয়েছে সেই তৃতীয় উইকেট পার্টনারশিপই। ১৪৪ রানের সে পার্টনারশিপ গড়েছেন মোহাম্মদ নাঈম (৯৬ বলে ৮২) ও অধিনায়ক নাঈম ইসলাম (৬৪ বলে ৭০)। কলাবাগানের বিপক্ষে জুনায়েদ ও মাইশুকুর রহমানের ২০৫ রানের দ্বিতীয় উইকেট পার্টনারশিপে ভর দিয়ে ব্রাদার্স তোলে ৪ উইকেটে ৩১৭ রান। মাইশুকুর (৯৬) সেঞ্চুরি বঞ্চনায় পুড়লেও ১৬ বাউন্ডারি ও ২ ছক্কায় ঠিকই চলতি লিগে প্রথমবারের মতো তিন অঙ্কের ম্যাজিক ফিগার ছুঁয়েছেন জুনায়েদ।


মন্তব্য