kalerkantho


নিউজিল্যান্ড যেন না জানে আমরা কোন উইকেটে বিপিএল খেলছি : রোডস

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৮ জানুয়ারি, ২০১৯ ১৬:১৪



নিউজিল্যান্ড যেন না জানে আমরা কোন উইকেটে বিপিএল খেলছি : রোডস

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) চলতি আসরে বেশ কয়েকটি ম্যাচের রান ১৯০ ছাড়ালেও উইকেট নিয়ে প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে। শাস্তির ভয়ে দেশি ক্রিকেটাররা এবার মুখে কুলুপ আঁটলেও বিদেশি ক্রিকেটাররা প্রায় ম্যাচেই উইকেট নিয়ে অভিযোগ করে যাচ্ছেন। ঘরোয়া এই টুর্নামেন্ট শেষেই জাতীয় দল যাবে নিউজিল্যান্ড সফরে। এই সফরে ক্রিকেটারদের কতটুকু সহায়তা করবে বিপিএলের অভিজ্ঞতা? প্রশ্নটি যেন হেসেই উড়িয়ে দিলেন স্টিভ রোডস।

সিলেটে বিপিএল দেখতে যাওয়া জাতীয় দলের কোচ আজ সাংবাদিকদের হাসতে হাসতে বললেন, 'আমরা যে এরকম উইকেটে বিপিএল খেলছি, নিউজিল্যান্ড যেন না জানে! সত্যি বলতে, বিপিএল খেলেই সরাসরি নিউ জিল্যান্ডে ওয়ানডে খেলতে যাওয়া আদর্শ প্রস্তুতির কোনো সুযোগ নেই। কিন্তু কী করার আছে আমাদের? বিপিএল ভালো টুর্নামেন্ট। কোনো একটি সময়ে আয়োজন করতেই হতো। কিন্তু এই সময় ছাড়া সুযোগও ছিল না।'

১৩ ফেব্রয়ারি নিউজিল্যান্ডের মাটিতে প্রথম ওয়ানডে খেলবে বাংলাদেশ। এর আগে ৬ ফেব্রুয়ারি বিপিএলের দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ার এবং ৮ ফেব্রুয়ারি ফাইনাল। ফাইনালের দুই দলের বাইরে ওয়ানডে ক্রিকেটাররা ৭ তারিখেই নিউ জিল্যান্ডের উদ্দেশে ঢাকা ছাড়বেন। আর যারা ফাইনাল খেলবেন, তারা ফাইনালের পরের দিনই নিউ জিল্যান্ডের উদ্দেশ্যে উড়াল দেবেন। তাই বছরের প্রথম বিদেশ সফরের আগে তাই দেশে একদিনও অনুশীলন করতে পারবে না দল।

বিষয়টি খুব একটা ভালো লাগেনি স্টিভ রোডসের। তিনি বললেন, 'আমরা এই বাস্তবতা বুঝি। যারা ওয়ানডে দলে থাকবে, এটির সঙ্গে মানিয়ে নিতে হবে। আমরা জানি, ওয়ানডে সিরিজের জন্য আমাদের প্রস্তুতিতে খুব তাড়াহুড়ো থাকবে। কিন্তু আমাদের সর্বোচ্চ চেষ্টা করতে হবে এবং যে ম্যাচই আসুক, জয়ের চেষ্টা করতে হবে। টেস্ট যারা খেলবে, ওরা একটু সময় পাবে মানিয়ে নেওয়ার। আশা করি ওদের সমস্যা হবে না।'

টাইগার কোচ তাই তাকিয়ে আছেন বিশ্বকাপের আগে আয়ারল্যান্ডে অনুষ্ঠিত ত্রিদেশীয় সিরিজের দিকে, 'নিউ জিল্যান্ডে জেতা অনেক কঠিন। ভালো কিছু করতে পারলে ওয়ানডেতে সঠিক পথেই থাকব। আয়ারল্যান্ড সফরের আগে আমাদের ভালো প্রস্তুতি হবে। দেশ ছাড়ার আগে মিরপুরে আমাদের ছোট্ট একটি ক্যাম্প হবে। এরপর আয়ারল্যান্ডের ঠাণ্ডা ও ভেজা আবহাওয়ায় মানিয়ে নিতে হবে। বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের উইকেটগুলো শুষ্ক হবে। আশা করি, দল তখন জয়ের ধারাবাহিকতায় থাকবে।'



মন্তব্য