kalerkantho



গোল না পাওয়ায় কিছুটা টেনশনে ছিলেন রোনালদো

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ১৫:৩২



গোল না পাওয়ায় কিছুটা টেনশনে ছিলেন রোনালদো

সাসোলোর বিপক্ষে রোববার সিরি-আ লিগের চতুর্থ ম্যাচে ২-১ গোলের জয় তুলে নিয়েছে জুভেন্টাস। বর্তমান চ্যাম্পিয়নদের হয়ে দুটি গোলই করেছেন পর্তুগীজ সুপারস্টার ক্রিস্টিয়ানো রোনাল্ডো। এই প্রথম রোনালদো জুভেন্টাসের হয়ে গোল করলেন। আর এতে তাকে সহযোগিতা করার জন্য সতীর্থদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন সাবেক রিয়াল মাদ্রিদ তারকা।

৩৩ বছর বয়সী রোনালদো জুলাইয়ে মাদ্রিদ থেকে ১১২ মিলিয়ন ইউরোতে জুভেন্টাসের আসার পর থেকে কোন গোল করতে পারছিলেননা। অবশেষে রোববার নিজের গোলখরা কাটিয়েছেন সিআর সেভেন। দুটি গোলই তিনি করেছেন দ্বিতীয়ার্ধে। ৫০ মিনিটে প্রথমে দলকে এগিয়ে দেবার পর ৬৫ মিনিটে করেন দ্বিতীয় গোল। আর এতেই মাসিমিলিয়ানো আলেগ্রির দলের জয় নিশ্চিত হয়।

সফরকারীদের কঠিন রক্ষনভাগকে ভেঙ্গে শেষ পর্যন্ত জয় তুলে নেয়ায় রোনালদো জুভেন্টাসের প্রতিটি খেলোয়াড়ের প্রশংসা করেছেন। তিনি বলেন, ‘আমি দারুন খুশী, আমাদের শুরুটা ভাল হয়েছে। সাসোলো রক্ষণভাগে দারুণ খেলেছে। কিন্তু আমরা ম্যাচের আবহ বুঝে আজ খেলেছি, এই জয়টা আমাদের প্রাপ্য ছিল। সত্যিকার অর্থেই আমি প্রথম গোলটি করতে চেয়েছিলাম। শেষ পর্যন্ত তা করতে পেরে আমি দারুন খুশি। এটাই ফুটবল। তবে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে দিনের শেষে দল জয়ী হয়েছে। অবশ্যই রিয়াল মাদ্রিদ থেকে আসার পর গোল না পাওয়ায় আমি কিছুটা টেনশনে ছিলাম। কিন্তু এরপরেও সতীর্থরা আমাকে যেভাবে সহযোগিতা করেছে তাতে আমি তাদের কাছে কৃতজ্ঞ। আমি নিশ্চিত ছিলাম যে ধরনের পরিশ্রম আমি করছি তাতে গোল পাওয়াটা সময়ের ব্যপার ছিল। ইতালিয়ান ফুটবলের সাথে আমি বেশ ভালই মানিয়ে নিয়েছি।’

বুধবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগ মিশন শুরু করতে ভ্যালেন্সিয়া সফরে যাবে জুভেন্টাস। মাদ্রিদের হয়ে গত তিন বছর এই প্রতিযোগিতায় শিরোপা জেতা রোনালদো এবার জুভেন্টাসের জন্য সাফল্য এনে দিতে মুখিয়ে আছেন। এইচ-গ্রুপের অপর দুটি দল হলো ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ও ইয়ং বয়েজ। গত মৌসুমে কোয়ার্টার ফাইনালে পৌঁছানো জুভেন্টাসের সামনে কঠিন পরীক্ষা অপেক্ষা করছে বলে রোনাল্ডো উল্লেখ করেছেন। এ সম্পর্কে তিনি বলেন, চ্যাম্পিয়ন্স লিগ আমার ফেবারিট টুর্নামেন্ট। এই গ্রুপটা সত্যিই কঠিন। আমি জানি আমরা ভাল করবো, নিজেদের সেরাটা দেবার জন্য জুভ মুখিয়ে আছে।



মন্তব্য