kalerkantho


সন্তানকে বুকের দুধ খাওয়াতে সেরেনাকে কোচের নিষেধ!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৮ আগস্ট, ২০১৮ ১৮:৫৮



সন্তানকে বুকের দুধ খাওয়াতে সেরেনাকে কোচের নিষেধ!

কোচ প্যাট্রিক মৌরাতোগ্লুর নিষেধের কারণে সন্তানকে স্তন্যপান করাতে গিয়ে বিপদে পড়ে গিয়েছিলেন মার্কিন টেনিস সম্রাজ্ঞী সেরেনা উইলিয়ামস! এই চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস করলেন ২৩ গ্র্যান্ডস্লাম জয়ী তারকা নিজেই। 'টাইমস' পত্রিকাকে সেরেনা বলেছেন, কোচ তো আর নারী নন; উনি কীভাবে বুঝবেন সন্তানকে বুকের দুধ খাওয়ানো কতটা জরুরি!

সেরেনার কোচের যুক্তি ছিল, ফিটনেস ধরে রাখতে সন্তানকে স্তন্যপান করালে চলবে না। সেটাই তিনি সেরেনাকে বলেন। ঘটনাচক্রে ফরাসি মৌরাতোগ্লু আবার সেরেনার সাবেক প্রেমিক। সেরেনা সরাসরি উড়িয়ে দিয়েছিলেন সেই প্রস্তাব

মার্কিন এই টেনিস তারকা বলেন, 'ঈশ্বর যে জীবন অলিম্পিয়াকে দিয়েছেন, তা জিইয়ে রাখার দায়িত্ব আমার। আমাকেই ওকে শান্ত রাখতে হবে। জীবনে আর কোনোদিন আমি এই ঐশ্বরিক ক্ষমতা পাব না। আমার দিনের সেরা সময়ই হচ্ছে, যখন অলিম্পিয়াকে দুধ খাওয়াতে যাই। এই কাজটা আমি করতেই চাই।'

এই সাক্ষাৎকারেই সেরেনা ফাঁস করেছেন ক্যারিয়ারের সবচেয়ে বিশ্রী হারের সময় তার মানসিক অবস্থার কথা। এ মাসের শুরুতেই সান হোসের সিলিকন ভ্যালি ক্লাসিকের প্রথম রাউন্ডে সেরেনা ১-৬, ০-৬ হেরে যান জোহানা কন্টার কাছে। মাত্র ৫৩ মিনিটের ম্যাচে এই হারই সেরেনার কেরিয়ারের সবচেয়ে খারাপ। সেরেনা জানিয়েছেন, তার এক বোনের খুনী প্যারোলে মুক্তি পাওয়ার খবর সেরেনা পেয়েছিলেন এই ম্যাচের ঠিক আগেই। যা তার মন খারাপ করে দিয়েছিল।

২০০৩ সালে সেরেনার এক বোন ইয়াতুন্ডে প্রাইস রবার্ট ম্যাক্সফিল্ড নামের আততায়ীর গুলিতে মারা যান। ২০০৬ সালের এপ্রিলে সেই খুনীর ১৫ বছরের জেল ঘোষণা হয়। কিন্তু সেরেনার ওই ম্যাচের দিন প্যারোলে মুক্তি পেয়েছেন ম্যাক্সফিল্ড। সেরেনার কথায়, 'আমি কিছুতেই এই মুক্তি পাওয়ার খবরটা মাথা থেকে বের করতে পারছিলাম না। তার কারণ, আমার দিদির সন্তানরা। যারা ওর মারা যাওয়ার সময় খুব ছোট ছিল।' 



মন্তব্য