kalerkantho


এবার অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের দ্বারে ধর্ণা দিচ্ছে পিসিবি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৪ জানুয়ারি, ২০১৮ ১৭:৫৮



এবার অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের দ্বারে ধর্ণা দিচ্ছে পিসিবি

দেশের মাটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরানোর লক্ষ্যে কত কিছুই না করছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। বিশ্ব একাদশের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের পর শ্রীলঙ্কা জাতীয় দলকেও পাকিস্তানের মাটিতে খেলিয়েছে তারা। কিন্তু এরপরও অন্য ক্রিকেট খেলুড়ে দলগুলো সন্ত্রাসের দেশ পাকিস্তানে খেলার ব্যাপারে নিশ্চুপ। বাধ্য হয়ে এবার ক্রিকেটের দুই বড় শক্তি অস্ট্রেলিয়া এবং নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ডে ধর্ণা দিচ্ছে জঙ্গি আক্রান্ত দেশটি।

পাকিস্তানের জিও টিভিতে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে পিসিবি চেয়ারম্যান নাজাম শেঠি বলেছেন, 'গত বছরটি আমাদের খুব ভালো গেছে। দলের সবার মাঝে দুর্দান্ত আত্মবিশ্বাস ফুটে উঠেছে। বিশেষ করে ভারতকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়নস ট্রফি জয় একটি অসাধারণ ঘটনা। আমরা এবার পুরোপুরিভাবে দেশের মাটিতে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরাতে চাই।'

আগামী ইমার্জিং কাপ পাকিস্তানে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও প্রথম আপত্তি জানিয়েছিল ভারত। এরপর বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডও (বিসিবি) এক বিবৃতিতে পাকিস্তানে খেলতে যেতে অস্বীকৃতি জানায়। বাংলাদেশের বিরুদ্ধে তেমন কিছু না বললেও ভারতের বিরুদ্ধে নালিশ, মামলা বহু কিছু করার চেষ্টা করছে পিসিবি। কিন্তু হালে পানি পাচ্ছে না। মরিয়া হয়ে পিসিবি এবার অস্ট্রেলিয়া আর নিউজিল্যান্ডকে রাজী করানোর চেষ্টা করছে।

নাজাম শেঠি আরও বলেছেন, 'গত বছর বিশ্ব একাদশ, পিএসএলের ফাইনাল ছাড়াও শ্রীলঙ্কার জাতীয় দলও এখানে (পাকিস্তানে) এসে খেলেছে। কোনো সমস্যা হয়নি। দারুণ সব ম্যাচ হয়েছে। এ বছরে মার্চে ওয়েস্ট ইন্ডিজও আসবে। আমরা টি-টোয়েন্টি র্যাংকিংয়ে শীর্ষে আছি। আশা করি ওয়ানডেতেও শীর্ষ দল হবে পাকিস্তান।'

এরপরেই তিনি জানান, নতুন বছরের অক্টোবর-নভেম্বরে পাকিস্তানের সঙ্গে হোম সিরিজ খেলতে আসবে অস্ট্রেলিয়া এবং নিউজিল্যান্ড। কিন্তু সিরিজ দুটির জন্য পাকিস্তানের 'হোম ভেন্যু' হিসেবে দুবাইকেই বেছে নেওয়া হয়েছে। অক্টোবরে ৫ ওয়ানডে এবং ১টি টি-টোয়েন্টি খেলতে আসবে অস্ট্রেলিয়া। পরের মাসে ৩ টেস্ট, ৫ ওয়ানডে এবং ১টি টি-টোয়েন্টির পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে পাকিস্তান যাবে নিউজিল্যান্ড। এই দুটি সিরিজ পাকিস্তানের মাটিতে অনুষ্ঠিত করার জন্যই এখন মাঠে নেমেছে পিসিবি।

পিসিবি চেয়ারম্যানের ভাষ্য অনুযায়ী, 'এবারের পিএসএলের দুটি ম্যাচ আমরা করাচিতে আয়োজন করব। এরপরেই অস্ট্রেলিয়া আর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে আমাদের যে হোম সিরিজের দিকে নজর দেব। সিরিজ দুটি দুবাইয়ে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও তা পাকিস্তানের মাটিতে আয়োজনের জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করে যাচ্ছে পিসিবি। পুরো সিরিজ খেলতে রাজি না হলেও অন্তত একটি করে ম্যাচ পাকিস্তানের মাটিতে খেলার আবেদন আমরা জানিয়েছি।'



মন্তব্য