kalerkantho


ছোটবেলার স্বপ্ন পূরণ হলো হাসান আলীর

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২১ অক্টোবর, ২০১৭ ১৫:৫৮



ছোটবেলার স্বপ্ন পূরণ হলো হাসান আলীর

আইসিসির ওয়ানডে র‌্যাংকিংয়ে সেরা বোলার হিসেবে শীর্ষস্থান দখল করেছেন পাকিস্তানের ২৩ বছর বয়সী ডান-হাতি পেসার হাসান আলী। মাত্র ২৩ বছর বয়সেই তিনি পিছনে ফেলেছেন বিশ্বের নামী দামি সব তারকা বোলারদের।

২০১৬ সালের আগস্টে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে অভিষেক হবার পরে মাত্র ১৪ মাসেই এই ধরনের উত্থান অনেকটা স্বপ্ন পূরণের মতোই। যে স্বপ্ন তিনি দেখতেন ছোটবেলায়।

মাত্র ২৩ ম্যাচে ৫০ উইকেট দখল করে সম্প্রতি বিশ্ব রেকর্ডও গড়েছেন। চলতি বছর এখন পর্যন্ত ১৭ ম্যাচে ৪৩ উইকেট তুলে নিয়ে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি হিসেবে শীর্ষস্থান অক্ষুণ্ন রেখেছেন। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে চলমান ওয়ানডে সিরিজেও হাসান এ পর্যন্ত সর্বোচ্চ উইকেট শিকার করেছেন। তার নৈপুণ্যে ৫ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে পাকিস্তান ইতোমধ্যেই ৪-০ ব্যবধানে এগিয়ে রয়েছে। জঙ্গি আক্রান্ত পাকিস্তানের 'হোম গ্রাউন্ড' আবুধাবিতেতে হাসান ৪ ম্যাচে নিয়েছেন ১২ উইকেট।

ওয়ানডেতে সর্বমোট ৫৩ উইকেট দখল করা হাসান বলেন, 'এটা অনেকটা স্বপ্ন সত্যিই হবার মতই ঘটনা। ছেলেবেলায় আমি ক্রিকেট নিয়ে অনেক স্বপ্ন দেখেছি, অনেক লক্ষ্যস্থির করেছি।

বিশ্বের এক নম্বর বোলার হওয়া তার মধ্যে অন্যতম ছিল। '

জুনে ইংল্যান্ডে অনুষ্ঠিত আইসিসি চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে পাকিস্তানের শিরোপা জয়ে হাসান আলীর ১৩ উইকেট শিকার বড় প্রভাব রেখেছে।  টুর্নামেন্টের সেরা খেলোয়াড় বিবেচিত হয়েছিলেন তিনি। এছাড়া উইকেট পাওয়ার পর তার উদযাপন ক্রিকেটপ্রেমীদের বেশ আকৃষ্ট করেছে।

গুজরানওয়ালার কাছে লাধে ওয়ালা ওয়ারিচের হয়ে প্রথম ক্রিকেট খেলেছেন হাসান।  এলাকাটি সাধারণত রেসলিং ও কাবাডির জন্য প্রসিদ্ধ। হাসানের বড় ভাই আতাউর রেহমান তার প্রতিভা দেখে বাড়ির পেছনে একটি পিচ তৈরি করে দেন যেখানেই মূলত হাসানের ক্রিকেটে হাতেখড়ি। সে কারণেই ক্যারিয়ারে ভাইয়ের প্রভাব স্মরণ করতে ভুল করেননি হাসান আলী।

প্রথম শ্রেণির কয়েকটি ম্যাচে অংশ নেবার পরই পিএসএলে পেশোয়ার জালমি প্রথম আসরেই তাকে কিনে নেয়।  উদীয়মান ক্রিকেটার হিসেবে পেশোয়ার জালমিতে সাবেক ইংল্যান্ড কোচ এন্ডি ফ্লাওয়ার ও পাকিস্তানের সাবেক পেসার মোহাম্মদ আকরামের সান্নিধ্য পান তিনি। তবে হাসান আলীর মতে, চ্যাম্পিয়নস ট্রফির সাফল্যই তার ক্যারিয়ারের টার্নিং পয়েন্ট। তার পরবর্তী লক্ষ্য এখন ২০১৯ বিশ্বকাপ।


মন্তব্য