kalerkantho


শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট দলের বাস আটকাল ক্ষুব্ধ সমর্থকরা!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২১ আগস্ট, ২০১৭ ১৭:৩৭



শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট দলের বাস আটকাল ক্ষুব্ধ সমর্থকরা!

লঙ্কান ক্রিকেট দলের বাসের সামনে থেকে বিক্ষোভকারীদের সরিয়ে দিচ্ছে নিরাপত্তাকর্মীরা। ছবি: এএফপি

উন্নতির ন্যুনতম লক্ষণ তো নেই, উল্টো দিনকে দিন যেন ব্যর্থতার অতলে ডুবে যাচ্ছে শ্রীলঙ্কার ক্রিকেট। গতকাল রবিবার ডাম্বুলায় প্রথম ওয়ানডেতে ভারতের কাছে ৯ উইকেটে হেরেছে স্বাগতিকরা! এতে যেন ধৈর্য্যের বাঁধ ভেঙে গেছে সমর্থকদের।

সেই ক্ষোভের ঢেউ এসে আছড়ে পড়ল ক্রিকেটারদের ওপর। ম্যাচ শেষে স্টেডিয়াম ছাড়ার সময় শ্রীলঙ্কার টিম বাস আটকে রাখল প্রায় অর্ধশতাধিক সমর্থক!

বাস আটকের সময় স্লোগানের মাধ্যমে নিজেদের ক্ষোভ প্রকাশ করেন শ্রীলঙ্কার ক্রিকেট ভক্তরা। দলের খেলোয়াড়দের পারফরমেন্সে অসন্তুষ্ট তারা। প্রায় ২০-২৫ মিনিট পর আইন-শৃঙ্খলাবাহিনী প্রতিবাদমুখী গ্রুপটিকে সেখান থেকে সরিয়ে নেন। এরপরও স্টেডিয়াম পাড়া ছাড়তে প্রায় ৩০ মিনিট সময় লেগে যায় শ্রীলঙ্কা টিম বাসের।

শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট ভক্তদের এমন ক্ষোভ দানা বাঁধছিল গত কয়েক মাস ধরেই। আইসিসি চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে ব্যর্থতার পর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজে হার! এরপর ভারতের কাছে টেস্ট সিরিজে নাকানি-চুবানি খায় লঙ্কানরা। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দল, নির্বাচক ও বোর্ডের কর্মকর্তাদের রীতিমতো ধুয়ে দিচ্ছিল ভক্তরা।  এবার টিম বাসের আটকে সেই ক্ষোভের প্রকাশ্য বহিঃপ্রকাশ দেখা গেল।

ভারতের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের আগে ভক্তদের সমর্থন চেয়ে ওয়ানডে অধিনায়ক উপুল থারাঙ্গা বলেছিলেন, 'দলের নৈতিক হাল ঠিক রাখতে ভক্তদের সমর্থন অনেক বড় ভূমিকা রাখে।  দেশের জন্যই আমরা খেলি। আমাদের লক্ষ্য থাকে দেশের ২০ মিলিয়ন পরিবারের গর্বিত হওয়ার মতো কিছু করা। তাই আপনাদের সমর্থন আমাদের জন্যে অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ। '

ভক্তদের এমন আচরণ জানতে পেরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শ্রীলঙ্কান কিংবদন্তি কুমার সাঙ্গাকারা লিখেছেন, 'যখন আমরা জিতেছি, তখন আপনারা আমাদের সঙ্গে উদযাপন করেছেন।  যখন আমরা হেরেছি, তখন দুঃখ প্রকাশ করেছেন। যখন দল জয়ের জন্য অনেক বেশি সংগ্রাম করছে, তখন আমাদের শক্তি বাড়াতে আপনাদের ভালোবাসা ও সমর্থন জরুরী।  এখন আমাদের ক্রিকেটারদের যা প্রয়োজন তা হল- ভালোবাসা, সমর্থন, ধৈর্য এবং প্রচেষ্টা। আসুন জয়ের প্রত্যাশায় সবাই মিলে দলকে সমর্থন করি। '


মন্তব্য