kalerkantho


ওয়েলিংটন টেস্টে হচ্ছেটা কী?

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৬ মার্চ, ২০১৭ ১৫:৪৫



ওয়েলিংটন টেস্টে হচ্ছেটা কী?

এটা কি টেস্ট ম্যাচ নাকি ওয়ানডে? ওয়েলিংটনের বেসিন রিজার্ভে নিউজিল্যান্ড বনাম দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচটি দেখলে মনে এমন প্রশ্ন আসতে বাধ্য। ঘরের মাঠে টেস্ট খেলতে নেমে কিউইদের যে এমন বিপদে পড়তে হবে কে জানত? ২১ রানে নেই ৩ উইকেট। এরপর নিকোলাস সেঞ্চুরি করে মান বাঁচালেন। কিন্তু টেস্ট ম্যাচটি হয়ে গেল যেন ওয়ানডে ম্যাচ! ৭৯.৩ ওভারেই ২৬৮ রানে প্যাকেট হয়ে গেল কিউইরা। দিনের বাকি সময় ব্যাট করতে নেমে ২ উইকেট হারাল প্রোটিয়ারা। আর কয়েকটি ওভার থাকলে হয়তো প্রথম দিনেই দুই দলের প্রথম ইনিংস শেষ হতো!

টসে জিতে এ দিন ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেয় প্রোটিয়ারা। দলীয় ১১ রানেই মরকলের বলে ল্যাথামকে (৮) হারিয়ে কিউইদের প্রথম উইকেটের পতন। ২ রানের ব্যবধানে রাবাদার বলে লেগ এলবিডাব্লিউয়ের ফাঁদে পড়েন অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন (২)। ২১ রানে ফিরে যান নেইল ব্রুম (০)। মহাবিপদে পড়া দলে রহাল ধরেন নিকোলাস এবং জিত রাভাল। দুজন মিলে চেষ্টা করলেও ব্যক্তিগত ৩৬ রানে ফিরে যান জিত রাভাল।

এরপর নিশামকে ফিরতে হয় ১৫ রান। অথৈ সমু্দ্রে পড়া কিউইদের টেনে তোলেন হেনরি নিকোলাস আর উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান ওয়াটলিং।

দুজনে মিলে ষষ্ঠ উইকেটে ১১৬ রানের জুটি গড়েন। ১৫০ বলে শতরান পূরণ করার পর ১৬১ বলে ১৫ বাউন্ডারিতে ১১৮ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন নিকোলাস। সঙ্গী ওয়াটলিংও ১৩২ বল খেলে ৩৪ রান করেন। নিকোলাসকে ফিরিয়ে এই জুটি ভাঙেন জেপি ডুমিনি। আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি কিউইরা। দ্রুত ৪ উইকেট তুলে নিয়ে নিউজিল্যান্ডের লেজের দিকটা একাই ছেঁটেছেন ডুমিনি। ২টি করে উইকেট নেন মরকেল, রাবাদা এবং কেশব মহারাজ।

প্রথম দিনেই প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নামে প্রোটিয়ারা। কিন্তু প্রতিপক্ষকে কম রানে বেঁধে ফেলার স্বস্তি বেশিক্ষণ থাকেনি তাদের। ১২ রানেই নেই প্রথম উইকেট। টিম সাউদির বলে নিশামের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান স্টিফেন কুক (৩)। পরের ওভারেই গ্র্যান্ডহোমের বলে সেই নিশামের হাতেই ধরা পড়েন অপর ওপেনার এলগার (৯)। এমতাবস্থায় ধসের শঙ্কা দেখা দেয় প্রোটিয়া শিবিরে। কিন্তু দিনের আলো কমে এসে এ যাত্রায় বাঁচিয়ে দেয় তাদের। প্রথম দিনে ৭ ওভার ব্যাট করে ২ উইকেটে ২৪ রানে দিন শেষ করে সফরকারীরা।


মন্তব্য