kalerkantho


পিএসএলে স্পট ফিক্সিং নিয়ে চিন্তিত মিয়াঁদাদ

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১১:১৩



পিএসএলে স্পট ফিক্সিং নিয়ে চিন্তিত মিয়াঁদাদ

চলমান পাকিস্তান সুপার লিগে (পিএসএল) হঠাৎ করেই বেশ কয়েকটি স্পট ফিক্সিংয়ের ঘটনায় আবারো নড়েচড়ে বসেছে পুরো ক্রিকেটবিশ্ব। একই সাথে পাকিস্তান ক্রিকেট এই ধরনের ঘটনায় আবারো সমালোচনা মুখে পড়েছে।

সাবেক পাকিস্তানি অধিনায়ক জাভেদ মিয়াঁদাদ মনে করেন স্পট ফিক্সিংয়ের মতো ঘটনা পিএসএলকে একসময় ধ্বংস করে দিবে, এর ফলে লিগের মর্যাদা দিনে দিনেই কমে যাবে।

তার মতে বিশ্বের অনেক ক্রিকেট বোর্ড ও খেলোয়াড়রই পিএসএল এর প্রতি তাদের শ্রদ্ধা ও সমর্থন হারিয়ে ফেলবে। বিশেষ করে শীর্ষস্থানীয় খেলোয়াড়দের নিজেদের মর্যাদা রক্ষার খাতিরেই এই সমস্ত আসর থেকে সড়ে যাওয়া উচিত বলেই তিনি মন্তব্য করেছেন।

ইতিমধ্যেই শারজিল খান ও খালিদ লতিফের মতো তরুণ দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত হয়েছেন এবং তাদেরকে পিএসএল থেকে সাময়িক ভাবে বহিষ্কার করা হয়েছে। এ ছাড়া নতুন করে তদন্তের মধ্যে আনা হয়েছে ফাস্ট বোলার মোহাম্মদ ইরফানসহ আরো ৩ খেলোয়াড়কে। ইতিমধ্যেই স্পট ফিক্সিং নিয়ে তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু হয়েছে। শনিবার লাহোর কালানডার্সের বিপক্ষে ইরফানকে ইসলামাবাদ ইউনাইটেডের দল থেকে বাইরে রাখা হয়েছিল।

মিয়াঁদাদ বলেন, "আমাদের লিগগুলো এই ধরনের বিতর্কের বাইরে ছিল। কিন্তু পিএসএলও এর মধ্যে চলে এসেছে।

এসব নিয়ে ভাবার সময় এসেছে। "

যদিও সাবেক আরেক অধিনায়ক আমির সোহেল এই বিষয়টিতে একেবারেই বিস্মিত হননি। তার মতে, টি-টোয়েন্টি লিগ ও টুর্নামেন্টগুলো দূর্নীতির অন্যতম এলাকা হিসেবে চিহ্নিত করা হয়। সাম্প্রতিক সময়ে ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি ম্যাচগুলোতেও এ সমস্ত ঘটনায় নজির রয়েছে। দুবাইয়ে পিএসএল শুরু করার আগে পিসিবির অবশ্যই অত্যন্ত সতর্ক থাকা উচিত ছিল। কারন স্পট ফিক্সিংয়ের সাথে জড়িত সিন্ডিকেট চক্রের নিজেদের জায়গা হিসেবে এই অঞ্চল বিশ্বব্যপী পরিচিত।

সাবেক ওপেনার ও পাকিস্তান দলের সাবেক প্রধান নির্বাচক ও প্রধান কোচ মহসিন খান বলেছেন, পিএসএলে এ ধরনের ঘটনা নিয়ে তিনি সবসময়ই শঙ্কিত ছিলেন। এজন্য অবশ্য তিনি পিসিবিকেই দায়ী করেছেন। এমন অনেক খেলোয়াড় পিএসএলের বিভিন্ন ফ্র্যাঞ্চাইজির সাথে ঘনিষ্ঠভাবে জড়িত যাদের বিরুদ্ধে অতীতে স্পট ফিক্সিংয়ের অভিযোগ রয়েছে।


মন্তব্য