kalerkantho


বল এতটা ঘুরবে ভাবতে পারেনি ইংল্যান্ড!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২০ অক্টোবর, ২০১৬ ২২:২০



বল এতটা ঘুরবে ভাবতে পারেনি ইংল্যান্ড!

ম্যাচের আগেই দুদলই জানত উইকেটে ব্যাপক টার্ন আছে। তাই স্পিনারদের জন্য স্বর্গরাজ্য হবে জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামের পিচ। হলোও তাই। ম্যাচের শুরু থেকেই সাকিব-মিরাজের ভেলকিতে চোখে সর্ষেফুল দেখতে লাগল ইংল্যান্ড। বেচারা অতিথিরা ধারণাও করেনি বল এতটা ঘুরবে!

অভিষিক্ত তরুণ স্পিনার মিরাজের ঘূর্ণিতে বিপর্যস্ত ইংল্যান্ড ৭ উইকেট হারিয়ে ২৫৮ রান সংগ্রহ করে। এর মধ্যে ৫ উইকেট মিরাজ এবং বাকী ২ উইকেট শিকার করেন বিশ্বের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। পাশাপাশি তাইজুলের ঘূর্ণিতে বিশেষ সুবিধা করতে পারেনি ইংল্যান্ড। তাইজুল উইকেট না পেলেও রান দেওয়ায় ছিলেন বেশ কৃপণ।

এই পরিস্থিতিতে সংবাদ সম্মেলনে মঈন আলী স্বীকার করে বসলেন বল এতটা ঘুরতে পারে সেটা তারা ঘুণাক্ষরেও ভাবতে পারেনি! নতুন বলে খেলতে সমস্যা হচ্ছিল মন্তব্য করে মঈন বলেন, “আমরা ভেবেছিলাম, ওরা হয়তো স্পিনারদের দিয়ে শুরু করতে পারে। কিন্তু এতটা ঘুরবে ভাবতে পারিনি। ”

১৭০ বলে ৮ চার এবং ১ ছক্কায় এখন পর্যন্ত ইংলিশদের সর্ব্বোচ্চ স্কোর ৬৮ রান সংগ্রহ করা মঈন শেষ পর্যন্ত সেই মিরাজের শিকারে পরিণত হন। নতুন বলে খেলতে সমস্যার বিষয়টি খোলাসা করে মঈন বলেন, “নতুন বল শুরু থেকেই ঘুরছিল। আবার সবসময় ঘুরছিলও না। তাই খেলাটা সহজ ছিল না। ”

মাঠে নামার আগ পর্যন্ত বাংলাদেশের প্রধান চিন্তার বিষয় ছিল বোলিং। একমাত্র সাকিব আল হাসান ছাড়া আর কোনো টেস্ট স্পেশালিস্ট  বোলারকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। অনেকটা বাজী ধরার মতই অভিষিক্ত হন তিন তরুণ তুর্কী। তাদের মধ্য  মিরাজ তার ভেল্কি দেখিয়ে আশংকার অনেকটাই দূর করেছেন।


মন্তব্য