kalerkantho

সোমবার । ৫ ডিসেম্বর ২০১৬। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ইংল্যান্ড-বিসিবি একাদশ ম্যাচ ড্র

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ অক্টোবর, ২০১৬ ১৭:৫১



ইংল্যান্ড-বিসিবি একাদশ ম্যাচ ড্র

শাহরিয়ার নাফীসের দেখানোর দরকার ছিল টেস্ট খেলার টেম্পারামেন্ট তার আছে। সৌম্য সরকারের কাছে রানের দাবি।

টিকে থাকার দাবি। টেস্টে যেটা দরকার খুব। দুজনই ৪৫ ওভারের ম্যাচে যতোটা সম্ভব দাবি মেটালেন। নাফীস ফিফটি আর সৌম্য ৩৩ রান করে অবসর নিলেন। মাঝে অধিনায়ক সাব্বির রহমান বেশ ওয়ানডে স্টাইলে মারলেন। ইংল্যান্ড আগে ব্যাট করে ৪ উইকেটে ১৩৭ রান করল। ১ ওভার বাকি থাকতে ৪ উইকেটে ১৩৬ রানে থামল বিসিবি একাদশ। ম্যাচ তাতে ড্র।

এটা ইংল্যান্ডের জন্য ছিল প্রস্তুতি ম্যাচ। টেস্টের প্রস্তুতি। দুই দিনের ম্যাচের দ্বিতীয় দিন। আগের দিনটা ভেজা আউটফিল্ডের কারণে পণ্ড হয়েছে। তাই একমাত্র দিনটির খেলায় ৪৫ ওভার করে বাধা দুই দলের জন্য। ১১ বছর পর ইংল্যান্ড দলে ফেরা ৩৮ বছরের গ্যারেথ ব্যাটি ৪৪তম ওভারে ২ উইকেট না নিলে স্বাগতিকদের ব্যাটিং আরো হৃষ্টপুষ্ট লাগতো। বিষয়টা একান্তই প্রস্তুতির বলে আনুষ্ঠানিক জয়-পরাজয়ের ব্যাপার ছিল না এই খেলায়।

উদ্বোধনী জুটিতে নাফীস ও সৌম্য মিলে ৮৮ রান করেছেন। ২৯তম ওভারে ফিফটি পূরণ করে নাফীস অবসর নেন। ৭৯ বলে ৫১ রান করেছেন। ৫ বাউন্ডারিতে। ২ চার ও ২ ছক্কায় ৯৬ বলে ৩৩ সৌম্যর। সাব্বির এরপর ৪৫ বলে ৪টি চার ও ১টি ছক্কায় ৩০ রান করেছেন। নাজমুল হোসেন শান্ত ৪৪ বলে ১৭ রানে অপরাজিত। মোসাদ্দেক হোসেন ২ বল খেলে শূণ্য হাতেই ফিরেছেন। ব্যাটি ১০ ওভারে ৩১ রানে ২ উইকেট নিয়ে সফল ইংলিশ বোলার। আরেক বাঁ হাতি স্পিনার ৮ ওভারে ২৩ রান দিলেন। আর আদিল রশিদ ৭ ওভারে ১০ রান দিলেন। মঈন আলি ৫ ওভারে ২২ রান দেন।

তার আগে যথার্থই টেস্ট ব্যাটিং প্র্যাকটিস করেছেন ইংল্যান্ডের ব্যাটসম্যানরা। টেস্ট অভিষেকের অপেক্ষায় থাকা দুই তরুণ বেন ডাকেট ও হাসিব হামিদ ইংলিশদের ব্যাটিং ওপেন করেন। ডাকেট ৬৩ বলে ৫৯ রান করে অবসর নেন। হাসিব ৫৬ বলে ১৬ রান করে আউট হয়েছেন। ইংল্যান্ডের ৩ উইকেট পড়েছে। প্রতিটি লেগ স্পিনে শিকার করেছেন সাব্বির। বিপজ্জনক জো রুটকে মাত্র ২ রানেই বিদায় করেছেন। গ্যারি ব্যালান্স ২৭ রানে অপরাজিত ছিলে। ২৪ রান করে ফিরেছেন মঈন আলি।


মন্তব্য