kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


আইপিএলের মত টি-২০ লীগ আয়োজন করবে ইংল্যান্ড

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২১:৪৯



আইপিএলের মত টি-২০ লীগ আয়োজন করবে ইংল্যান্ড

ইন্ডিয়ার প্রিমিয়ার লীগ (আইপিএল) ও বিগ ব্যাশের মত টুয়েন্টি টুয়েন্টি ক্রিকেট লীগ আয়োজন করতে যাচ্ছে ইংল্যান্ড। আগামী মৌসুম থেকেই ইংল্যান্ডে টি-২০ লীগ দেখা যাবে নতুন রূপে।

একথা জানান ইংল্যান্ড এন্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডের (ইসিবি) চেয়ারম্যান কলিন গ্রাভেস। তিনি বলেন, ‘ইংল্যান্ডে টি-২০ ফরম্যাটকে আরো বেশি বিস্তার করতে ও জনপ্রিয়তা বাড়াতে আইপিএল এবং বিগ ব্যাশের মত টুর্নামেন্ট আয়োজন করবো আমরা। ’

২০০৮ সালে প্রথম শুরু হয় আইপিএল। প্রথম আসরেই ক্রিকেটপ্রেমিদের নজর কাড়ে আইপিএল। ফলে প্রতি বছরই সফলতার সাথে অনুষ্ঠিত হয় এই টুর্নামেন্টে। বিশ্বের ঘরোয়া লীগগুলোর মধ্যে টি-২০ ফরম্যাটে আইপিএলই প্রথম টুর্নামেন্ট। এরপর আইপিএলের মত করেই বিভিন্ন দেশের ঘরোয়া আসরে শুরু হতে থাকে টি-২০ টুর্নামেন্ট। অস্ট্রেলিয়ার বিগ ব্যাশ, ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্যারিবীয়ান প্রিমিয়ার লীগ, বাংলাদেশে বিপিএলসহ আর বেশক’টি।

তবে একমাত্র ব্যতিক্রম ছিলো ইংল্যান্ড। আইপিএলের থেকে কিছুটা ভিন্নরুপে টি-২০ লীগ আয়োজন করে তারা। তবে এবার তাদের টনক নড়েছে। আইপিএল ও বিগ ব্যাশের মত টি-২০ লীগ আয়োজন করতে যাচ্ছে ইংল্যান্ড। তাই আগামী মৌসুম থেকেই দেখা যাবে নতুন আঙ্গিকে দেখা যাবে ইংল্যান্ডের টি-২০ লীগ, এমনটাই ইঙ্গিত দিলেন ইসিবির চেয়ারম্যান গ্রাভেস, ‘আইপিএল ও বিগ ব্যাশের মত করে টি-২০ লীগ করতে চাই আমরা। বিগ ব্যাশ টুর্নামেন্টকে আরও সুন্দরভাবে করতেই এমন উদ্যোগ। ’

হঠাৎই কেন এমন সিদ্বান্ত সেটিও বললেন গ্রাভেস, ‘আইপিএল ও বিগ ব্যাশ টুর্নামেন্ট পরীক্ষিত এবং এই দু’টি টুর্নামেন্ট বিশ্বব্যাপী অনেক বেশি জনপ্রিয়। আমরা চাচ্ছি, আমাদের ন্যাটওয়েস্ট টি-২০ ব্লাস্টকে নতুনভাবে শুরু করতে। ’

২০০৩ সাল থেকেই ঘরোয়া আসরে টুয়েন্টি টুয়েন্টি লীগ আয়োজন করছে ইংল্যান্ড। প্রথম সাত আসরে টুর্নামেন্টের নাম ছিলো টি-২০ কাপ। এরপর ২০১০ সালে নতুন নামকরন হয় টুর্নামেন্টটির, ফ্রেন্ডস লাইফ টি-২০। আবার ২০১৪ সালে পরিবর্তন হয় টুর্নামেন্টটির। হয় ন্যাটওয়েস্ট টি২০ ব্লাস্ট।


মন্তব্য