kalerkantho

রবিবার। ৪ ডিসেম্বর ২০১৬। ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


বোমাতঙ্কে ৫ বার আইপিএল খেললেও বাংলাদেশ সফরে মরগ্যানের ‘না’!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৬:১৮



বোমাতঙ্কে ৫ বার আইপিএল খেললেও বাংলাদেশ সফরে মরগ্যানের ‘না’!

অনেক জল্পনা কল্পনার শেষে বাংলাদেশ সফরে আসছে ক্রিকেটের পরাশক্তি ইংল্যান্ড। ইংল্যান্ডকে অন্ততঃ ওয়ানডেতে হারানো যে বাংলাদেশের জন্য কঠিন কিছু না সেটা গত বিশ্বকাপই প্রমাণ।

অনেক নাটকীয়তা এবং অনিশ্চয়তার মেঘ ছিল এই সিরিজটিকে ঘিরে। এই সিরিজে অনেকদিন ধরে টেস্ট না খেলা টাইগাররা আবারও টেস্ট খেলার সুযোগ পাচ্ছে। সাম্প্রতিক কিছু জঙ্গি হামলার প্রেক্ষিতে গৃহীত নিরাপত্তা ব্যবস্থায় ইংলিশ ক্রিকেট বোর্ড এবং প্রায় সকল ক্রিকেটার সন্তুষ্ট  হলেও সন্তুষ্ট হতে পারেননি ইংলিশ অধিনায়ক এউইন মরগ্যান। যে কারণে জস বাটলারকেই নেতৃত্ব দিতে হচ্ছে আসন্ন সিরিজে।

কিন্তু এই ঘটনায় মরগ্যানের ক্যাপ্টেন্সি ক্যারিয়ার এখন অনেকটাই হুমকির মুখে পড়েছে। বাংলাদেশের ক্রীড়াসংশ্লিষ্ট ব্যক্তিবর্গ কিংবা মিডিয়ায় মরগ্যানের এই অবস্থানের তেমন কোনো সমালোচনা না হলেও সমালোচনায় মুখর হয়েছে ইংলিশ মিডিয়া। এমনকী সাবেক-বর্তমান ক্রিকেটাররাও মরগ্যানের এই অবস্থানের সমালোচনা করেছেন।  মিডিয়াগুলো প্রশ্ন তুলেছে, বাংলাদেশ সফরে  না গিয়ে সামনে থেকে নেতৃত্ব দেওয়ার বিষয়টিতে আবারও অকৃতকার্য হলেন মর্গ্যান। তিনি দলকে এখন কীভাবে বলবেন লড়াই করতে?

সবচেয়ে গুরুতর প্রশ্ন তুলেছে যুক্তরাজ্যের নামীদামী পত্রিকা ডেইলি সান। তারা বলছে, ২০১০ সালে ভারতের প্রিমিয়ার লিগ আইপিএল এ বোমাতঙ্কের পরও তিনি আরও পাঁচবার আইপিএল খেলেছেন। তবে এত নিরাপত্তার পরও বাংলাদেশে না যাওয়ার পেছনে মরগ্যানের যুক্তি গ্রহণযোগ্য নয়। ইংলিশ মিডিয়াগুলোর বক্তব্য, বাংলাদেশ সফরে না গেলে মরগ্যানের অধিনায়কত্ব ছেড়ে দেওয়া উচিৎ। এমন অধিনায়ক দলের জন্য ক্ষতিকর।

শুধু মিডিয়া নয়, মরগ্যানের এই সিদ্ধান্তে ক্ষুব্ধ হয়েছে ইংল্যান্ড ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। সাবেক অধিনায়ক মাইকেল ভন বলেছেন, ‘ইংল্যান্ড অধিনায়ক কাজ হলো নেতৃত্ব দেওয়া, মরগানের বাংলাদেশে না যাওয়া বড় ভুল। ’ এতে নিজের ক্যারিয়ারকে মরগ্যান ঝুঁকি এবং প্রশ্নের মুখে ঠেলে দিলেন বলে  মনে করছেন অনেকেই। এমন অধিনায়ক, যে দলকে ক্রিকেটযুদ্ধে পাঠিয়ে নিজে বাসায় থেকে যায় তাকে নেতৃত্বে না রাখতে ইসিবির উপর এখন চাপ বাড়ছে।


মন্তব্য