kalerkantho

26th march banner

স্প্যানিশ লিগ

রিয়ালের জয়, বার্সেলোনার ড্র

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২১ মার্চ, ২০১৬ ১৫:৫১



রিয়ালের জয়, বার্সেলোনার ড্র

বার্সেলোনা এগিয়ে ছিল ২ গোলে। কিন্তু নিজেদের মাঠ এল মাদ্রিগালে বিরতির পর ঘুরে দাঁড়ায় ভিয়ারিয়াল। ভিয়ারিয়াল শিরোপা লড়াইয়ে নেই। তারা চার নম্বরে। আসলে বার্সেলোনার সাথে লড়াইয়ে কেউই নেই। ভিয়ারিয়াল কাতালানদের কাছ থেকে রবিবার রাতে ১ পয়েন্ট কেড়ে নিল। খেলা ২-২ গোলে ড্র। তারপরও সমস্যা নেই বার্সার। কারণ, পয়েন্ট টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে থাকা আতলেতিকো মাদ্রিদের সাথেই ৯ পয়েন্টের ব্যবধান তাদের। টানা ৩৯ ম্যাচে অপরাজিত থাকার অবিশ্বাস্য রেকর্ড বার্সার। গত বছরের অক্টোবরের পর তারা আর হারেনি।

একই রাতে রিয়াল মাদ্রিদ ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত করেছে সেভিয়াকে। রিয়ালের আক্রমণের তিন মূল অস্ত্রই গোল পেয়েছেন। তারপরও শিরোপা ধরে রাখতে এগিয়ে যাওয়া চির প্রতিদ্বন্দ্বী বার্সার সাথে ১০ পয়েন্টের ব্যবধান তাদের।
 
সান্তিয়াগো বার্নাবুতে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো, গ্যারেথ বেল ও করিম বেনজিমা সমর্থকদের সন্তুষ্ট করেছেন। দলের অন্য গোলটি করেছেন হেসে। তবে বেল এদিন লা লিগায় বৃটিশ খেলোয়াড় হিসেবে সর্বোচ্চ গোল করার রেকর্ড গড়েছেন। রিয়ালের হয়ে ৪৩তম গোলটি করে এই ওয়েলশম্যান ছাড়িয়ে গেছেন ইংল্যান্ডের কিংবদন্তি গ্যারি লিনেকারকে। দ্বিতীয়ার্ধে তিনটি গোল করেছে রিয়াল। তার একটি বেলের। প্রথমার্ধে ১-০ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে যায় রিয়াল। ৬ মিনিটের সময়ই লক্ষ্যভেদ করেন বেনজিমা। ৬৪ ও ৬৬ মিনিটে গোল করেন যথাক্রমে রোনালদো ও বেল। এরপর ৮৬ মিনেটে ম্যাচের শেষ গোল আসে হেসের কাছ থেকে।  
 
বার্সা এদিন নিজেদের মানের চেয়ে একটু কম ভালো খেলেছে। তারপরও প্রথমার্ধে ২-০ গোলে এগিয়ে ছিল তারা। লিওনেল মেসির ফ্রি কিক থেকে তৈরি সুযোগে ইভান রাকিতিচ ২০ মিনিটের সময় গোল করেন। গোলকিপার সার্জিও আসেনিও নেইমারকে ফাউল করেছিলেন। কিন্তু এটা বিতর্কিত। সেই বিতর্কিত পেনাল্টি থেকে ৪১ মিনিটে ঠাণ্ডা মাথায় গোল করেছেন নেইমার। কিন্তু ভিয়ারিয়াল লড়াইয়ে ফিরেছে। ৫৭ মিনিটে সেডরিক বাকাম্বু ব্যবধান ২-১ করেন। আর জেরেমি ম্যাথিউর আত্মঘাতী গোলে ৬৩ মিনেটে সমতা আসে। এরপর লড়াই জমলেও গোল পায়নি কেউ।   


মন্তব্য