kalerkantho

সোমবার। ২৩ জানুয়ারি ২০১৭ । ১০ মাঘ ১৪২৩। ২৪ রবিউস সানি ১৪৩৮।


তাসকিনের ব্যাপারে আইসিসির জবাবের অপেক্ষায় বিসিবি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২০ মার্চ, ২০১৬ ২১:০৯



তাসকিনের ব্যাপারে আইসিসির জবাবের অপেক্ষায় বিসিবি

তাসকিন আহমেদের নিষেধাজ্ঞার বিরুদ্ধে আইসিসির কাছে আপিল করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। রবিবার এই আপিল করার পর দ্রুত তাসকিনের নিষেধাজ্ঞা উঠে যাবে বলে আশা করছে বিসিবি। আইসিসির জবাবের অপেক্ষায় এথন তারা। আইসিসির কাছে এরকম ক্ষেত্রে আপিল করার বিষয়টি সময় সাপেক্ষ। তাই বিসিবির প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান পাপন সরাসরি আইসিসির চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহর ও প্রধান নির্বাহী ডেভ রিচার্ডসনের সাথে কথা বলেছেন।

চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম রাউন্ডের ম্যাচের সময় আরাফাত সানি ও তাসকিন রিপোর্টেড হন। পরে চেন্নাইয়ে অ্যাকশনের পরীক্ষা দেন তারা। শনিবার আইসিসি তাদের অ্যাকশন অবৈধ রায় দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সাময়িক নিষেধাজ্ঞা দেয়।

কিন্তু আইসিসির এই নিষেধাজ্ঞার সাথে একমত না বিসিবি। আসলে একমত না তাসকিনের বোলিং অ্যাকশন নিয়ে দেয়া ইন্ডিপেন্ডেন্ট অ্যাসেসমেন্টের রিপোর্টেই। "এখন পর্যন্ত আমরা তাসকিনের ব্যাপারটিতে সন্তুষ্ট না। রিপোর্টে আমাদের সন্তুষ্ট হওয়ার মতো কিছু নেই। " বিসিবি প্রেসিডেন্ট পাপন বলেছেন, "এটা হতাশার। তাই আমরা আইসিসির কাছে আপিল করেছি। আমাদের আবেদনের ভিত্তি আছে। সেগুলো আমরা যুক্তি দিয়ে বলেছি। আইসিসি কেবল আইসিসির সিদ্ধান্ত তুলে নিতে পারে। সেই কারণে আমি সরাসরি আইসিসির সাথে কথা বলেছি। আমরা কি যুক্তি দিয়েছি তা বলা ঠিক হবে না। এইটুকু বলতে পারি সম্ভাব্য সবকিছুই করেছি আমরা। "

পাপন জানিয়েছেন তাসকিনের নিষেধাজ্ঞা যাতে দ্রুত উঠে যায় তাই বিসিবি ভিন্ন পথে চেষ্টা করছে। প্রথাগত নিয়মে হাটছে না। বোর্ড প্রেসিডেন্টের কথায়, "অন্যদের ব্যাপারে আমরা যেমনভাবে এগিয়েছে তার সাথে এইবারেরটির পার্থক্য আছে। আমি রিপোর্টটা (আইসিসির ইন্ডিপেন্ডেন্ট অ্যাসেসমেন্ট) সকালে পড়ার পরই আইসিসির প্রধান নির্বাহী ডেভ রিচার্ডসন ও চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহরের সাথে কথা বলেছি। তারা বলেছে, আইনি দলের সাথে কথা বলে আমাদের জানাবে। সাধারণ খেলোয়াড়রা পূনর্বিবেচনার আবেদন করে। এটা একটু জটিল। আমরা এর বাইরে গিয়ে চেষ্টা করছি। আমার বিশ্বাস আইসিসি আমাদের পয়েন্ট পর্যালোচনা করে যৌক্তিক জবাব দেবে। "

শর্টকাটে কিছু করা যায় কি না তাই দেখছে বিসিবি। তাসকিনের নিষেধাজ্ঞা উঠে যাবে এমন আশাও করছে। যদিও এমন নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার রেকর্ড আইসিসির নেই। তবে বিসিবি প্রেসিডেন্ট বলেছেন, "আইসিসি কখনো দ্রুত সিদ্ধান্ত বদলেছে এমনটা দেখিনি। কিন্তু তাসকিনের ব্যাপারে তেমনটা হলে আমি অবাক হবো না। আমি আশা ছাড়িনি। যদিও এটা কঠিন। আমার মনে হয়, তাসকিনের দ্রুতই আমাদের সাথে যোগ দেয়ার কিছুটা আশা আছে । "
 
এরকম নিষেধাজ্ঞা আইসিসি স্বল্প সময়ে তোলে না। তবে ২০০০ সালে একবার ১১ দিনের মধ্যে পাকিস্তানের ফাস্ট বোলার শোয়েব আখতারের নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়েছিল। ১৯৯৯ সালের ৩০ ডিসেম্বর নিষিদ্ধ হয়েছিলেন শোয়েব। এর ১০ দিন পর ব্রিসবেনে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছিলেন। খেলা শুরু হওয়ার কয়েক ঘণ্টা পর ভেন্যুতে পৌঁছেছিলেন। আইসিসির সিদ্ধান্তের সময় শোয়েব পার্থে ছিলেন।  


মন্তব্য