kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ৮ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ধর্মশালার কন্ডিশনই মাশরাফিদের জন্য চ্যালেঞ্জ!

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৮ মার্চ, ২০১৬ ১৯:৫১



ধর্মশালার কন্ডিশনই মাশরাফিদের জন্য চ্যালেঞ্জ!

বাংলাদেশ দল শেষবার ভারতে খেলেছিল ২০০৬ সালে। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে।

টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজার সাথে সেই সফরের কেবল সাকিব আল হাসানই টিকে আছেন। ভারতের অন্য কোথাও খেললে সমস্যার কিছু ছিল না। কন্ডিশন বাংলাদেশের মতোই হতো। কিন্তু ঝামেলার ব্যাপার হয়ে দাঁড়িয়েছে ধর্মশালা। এটা সমুদ্র পৃষ্ঠ থেকে ৪৭৮০ ফুট উপরে। এটাই এখন মাশরাফির এশিয়া কাপ রানার্স আপ দলের জন্য চ্যালেঞ্জ।

এই পরিস্থিতির সাথে মানিয়ে নেয়ার মোটেই সময় পায়নি বাংলাদেশ। ৬ মার্চ ঢাকায় ভারতের বিপক্ষে খেলেছে এশিয়া কাপের ফাইনাল। ৭ মার্চ ধর্মশালায় এসেছে। ৮ মার্চ প্রথম মাঠে নেমেছে অনুশীলনে। ৯ মার্চই নেদারল্যান্ডসের সাথে গ্রুপ 'বি'তে বিশ্ব টি-টোয়েন্টির বাছাইয়ের খেলায় নেমে পড়তে হচ্ছে। জানুয়ারিতে দলকে একটি স্বল্প দৈর্ঘ্যের ক্যাম্প করতে ধর্মশালায় পাঠানোর পরিকল্পনা ছিল। কিন্তু তখন শীত থাকায় পরিকল্পনা বাতিল করা হয়।

এরকম উচু জায়গায় মাশরাফিদের শ্বাস নিতেও কিছু সমস্যা হচ্ছে। উত্তর ভারতের শীতের সাথে মানিয়ে নিতে হচ্ছে। ঢাকায় এখন গরম। এইসব পরিস্থিতি আগে সামলাতে হচ্ছে মাশরাফির দলকে। এশিয়া কাপে সংযুক্ত আরব আমিরাত, শ্রীলঙ্কা ও পাকিস্তানকে হারানোর পর এশিয়া কাপের রানার্স আপ হয়েছে। দল ভালো অবস্থায় আছে। কিন্তু মাশরাফিকে একটু ভিন্ন এই কন্ডিশন নিয়েই দুশ্চিন্তা করতে হচ্ছে।

"ভারতের কন্ডিশন আমাদের মতোই। কিন্তু এখানে একটু ভিন্নতা আছে। " মঙ্গলবার হিমাচল প্রদেশ ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন মাঠে ঘণ্টা তিনেকের অনুশীলন করেছে বাংলাদেশ। অনুশীলনের পর মাশরাফি বলেছেন, "এখানে নিঃশ্বাস নেয়ার সাথেও মানিয়ে নিতে হচ্ছে। আমাদের সময় দরকার ছিল। রাতে ঠাণ্ডা থাকছে। আমাদের দুটি ম্যাচ রাতে খেলতে হবে। (১১ ও ১৩ মার্চ)। নিজেদের সেরাটাই খেলতে হবে। এটা সত্যি যে ভারতে আমরা তেমন খেলার সুযোগ পাই না। তবে এটা অজুহাত না। একজন, দুজন ছাড়া সবার জন্যই ভারতের কন্ডিশন নতুন। আশা করছি সেরাটা দেয়ার। "

নেদারল্যান্ডস ধর্মশালার কন্ডিশনের সাথে মানিয়ে নেয়ার সময় পেয়েছে। এর মধ্যে একটি সপ্তাহ এখানে কাটিয়ে ফেলেছে। তবে এসব ভাবনা থেকে বেরিয়ে টি-টোয়েন্টিতে তুলে আনা সাম্প্রতিক সাফল্যের ওপর ভর করেই এগিয়ে যেতে চায় টাইগাররা। মাশরাফি সেটাই বললেন, "টি-টোয়েন্টির হিসেবে এটা আমাদের অসাধারণ অর্জন। আমরা দল হিসেবে গড়ে উঠছি। গত সপ্তাহে আমরা টি-টোয়েন্টিতে ভালো করেছি। আমাদের সামনে আরো চ্যালেঞ্জ। "


মন্তব্য