ফাইনালে ভারতের কাছে ভীতিহীন ক্রিকেট-332465 | খেলাধুলা | কালের কণ্ঠ | kalerkantho

kalerkantho

শনিবার । ১ অক্টোবর ২০১৬। ১৬ আশ্বিন ১৪২৩ । ২৮ জিলহজ ১৪৩৭


এশিয়া কাপ ফাইনাল

ফাইনালে ভারতের কাছে ভীতিহীন ক্রিকেট চান শাস্ত্রি

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

৫ মার্চ, ২০১৬ ১৬:২৫



ফাইনালে ভারতের কাছে ভীতিহীন ক্রিকেট চান শাস্ত্রি

১৯৮৩ বিশ্বকাপ। লর্ডসে ওয়েস্ট ইন্ডিজ হ্যাটট্টিক শিরোপাটা জিততে পারেনি। কপিল দেবের নেতৃত্বে রবি শাস্ত্রিদের দল প্রথমবার ভারতকে করেছিল বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন। ঢাকার মিরপুরে রবিবার ৮৩'র ওয়েস্ট ইন্ডিজের ভাগ্য বরণ করতে চান না শাস্ত্রি। ভারতের টিম ডিরেক্টর তিনি। দলের প্রধান। কোচ থেকে প্রধান পরামর্শক, পরিকল্পক, সবই শাস্ত্রি। সেই তিনি এশিয়া কাপের ফাইনালে স্বাগতিক বাংলাদেশকে নিয়ে দারুণ সতর্ক। তবে ভারতের কাছে প্রত্যাশা ভীতিহীন ক্রিকেট।

অস্ট্রেলিয়াকে মহেন্দ্র সিং ধোনির দল অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে হোয়াইটওয়াশ করে এলো। ৩-০তে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জিতল। এরপর শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে দেশের মাটিতে প্রথম ম্যাচটা হেরেছিল। কিন্তু ধোনিরা দারুণভাবে ঘুরে দাঁড়ায়। লঙ্কানদের ২-১ এ সিরিজ হারিয়ে আসে এশিয়া কাপ খেলতে। এরপর একে একে হারিয়েছে বাংলাদেশ, পাকিস্তান, আমিরাত, শ্রীলঙ্কাকে। সেরাদের হারিয়ে এশিয়ার সেরাই বটে ভারত। কিন্তু শিরোপা লড়াইয়ে বাংলাদেশকে না হারানো পর্যন্ত আনুষ্ঠানিক চ্যাম্পিয়ন না তারা।

ভারত বিশ্ব র‌্যাংকিংয়ে ১ নম্বর। এশিয়া কাপের শিরোপাটা ফসকে যাক তা তো কোনোভাবে চাইবেন না শাস্ত্রি। বলেছেন, "টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে আমরা বিশ্বের এক নম্বর দল। ধীরে ধীরে এটি পেয়েছি। কিন্তু এই পথটা উপভোগ্য ছিল। আগামীকাল (রবিবার) ফাইনালেও আমরা তেমন ক্রিকেট খেলার আশা করছি।"

পিচ কেমন হবে? পেসাররা বাড়তি সুবিধা পাবেন? নাকি স্পিনাররা রাজত্ব করবেন? নাকি ব্যাটসম্যানদের দাপটে বোলাররা উড়ে যাবেন! শাস্ত্রি পিচ নিয়ে ভাবছেন না, "পিচ আমাদের হাতে নেই। যে রকম উইকেটই হোক আমরা খেলতে প্রস্তুত। কন্ডিশন যাই হোক আমাদের কাজ সেখানে খেলা। দুই দলকে একই উইকেটে খেলতে হবে। এটা ফেয়ার প্লে হবে।"

এবারের আসরের উদ্বোধনী ম্যাচে ভারত বেশ সহজেই ৪৫ রানে বাংলাদেশকে হারিয়েছিল। কিন্তু এরপর যেভাবে আমিরাত, শ্রীলঙ্কা, পাকিস্তানকে হারিয়ে ফাইনালে উঠে এসেছে বাংলাদেশ তাতে ফাইনাল নিয়ে ভারতের তো বাড়তি দুশ্চিন্তায় থাকারই কথা।

মন্তব্য