kalerkantho

একই, নাকি আলাদা?

২১ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



একই, নাকি আলাদা?

অভিনেতা হিসেবে মনে রাখার মতো কিছু করতে না পারলেও পরিচালক হিসেবে অভিষেকেই চমকে দিয়েছেন জর্ডান পিল। ‘গেট আউট’-এর পর তাঁর দ্বিতীয় ছবি ‘আস’ মুক্তি পাবে আগামীকাল। ছবিটি নিয়ে লিখেছেন হাসনাইন মাহমুদ

 

আপাতদৃষ্টে পরিবার নিয়ে সুখী জীবন। হঠাৎই একদিন দেখলেন, ঠিক আপনার মতো দেখতে আরেক ব্যক্তি এসে হাজির। একের পর এক অঘটন ঘটিয়ে যাচ্ছে সে। শুধু আপনারই নয়, পরিবারের প্রত্যেক সদস্যেরই একজন করে নকল হাজির! এমন গল্প নিয়ে জর্ডান পিল নির্মাণ করেছেন ‘আস’। ছবিতে দেখা যাবে, উইলসন পরিবার ছুটিতে সমুদ্রে ঘুরতে যায়। হুট করেই পরিবারের প্রত্যেকের মতো আরেকটি সত্তার আবির্ভাব। ঘটতে থাকে অদ্ভুতুড়ে সব ঘটনা। এরপর কাহিনি মোড় নেয় বেঁচে থাকার লড়াইয়ের গল্পে। চলচ্চিত্রটির প্রধান প্রধান চরিত্রে আছেন অস্কারজয়ী অভিনেত্রী লুপিটা নিওঙ্গ, উইনস্টন ডেক, এলিজাবেথ মস ও টিম হেইডেকার।

অভিনেতা হিসেবে ক্যারিয়ার শুরু করলেও জর্ডান পিল বুঝতে পারেন, তাঁর প্রতিভা নির্মাণে। ২০১৭ সালে নির্মাণ করেন হরর চলচ্চিত্র ‘গেট আউট’। মাত্র সাড়ে চার মিলিয়ন ডলারের ছবিটি বিশ্বজুড়ে আয় করে আড়াই শ মিলিয়নেরও বেশি! সমালোচকরাও এক নতুন শক্তিশালী পরিচালকের আবির্ভাবে প্রশংসায় মেতে ওঠেন। তবে পরিচালক হরর চলচ্চিত্র বলতে চাইলেও অনেক সমালোচকই সেই ঘরানায় ফেলতে চাননি ‘গেট আউট’কে। পরিচালক তখনই ঘোষণা দেন, এরপর পুরোদস্তুর হরর চলচ্চিত্র বানাবেন। সেই ছবিই হলো ‘আস’। পরিচালক এই সিনেমাকে ‘গেট আউট’ থেকে একেবারেই আলাদা বলছেন, ‘আমরা নিজেদের ধ্বংস করার এক লড়াইয়ে থাকি সব সময়। চলচ্চিত্রটি সেই লড়াইয়ের একটি রূপক।’ পরিচালক হিসেবে বেশ কড়া এই সাবেক কৌতুক অভিনেতা। চিত্রায়ণ শুরুর আগেই কলাকুশলীদের হাতে ধরিয়ে দিয়েছিলেন হোম ওয়ার্ক—দেখতে হবে ১০টি সেরা হরর চলচ্চিত্র। লুপিটা নিওঙ্গ বেজায় উচ্ছ্বসিত এই চলচ্চিত্র নিয়ে। জর্ডান পিলের আগের ছবি ‘গেট আউট’ দেখেছেন পাঁচবার। তখনই ঠিক করেছিলেন, সুযোগ পেলে এই পরিচালকের সঙ্গে কাজ করবেন। কাকতালীয়ভাবে কিছুদিন পরই আসে প্রস্তাব। রাজি হতে দ্বিতীয়বার ভাবেননি। ভুল যে হয়নি, তার প্রমাণ ট্রেলার প্রকাশের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দর্শকদের উচ্ছ্বাস। চলচ্চিত্র উৎসবে প্রদর্শনের পর অনেক সমালোচক ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন, এই ছবির জন্য দ্বিতীয়বার অস্কার পাবেন লুপিটা।

 

মন্তব্য