kalerkantho


জোড়া ছবিতে অভিষেক

কাল মুক্তি পাবে ‘নায়ক’ ও ‘মাতাল’। দুটি ছবিরই নায়িকা অধরা খান। এই নবাগতাকে নিয়ে লিখেছেন সুদীপ কুমার দীপ

১১ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:০০



জোড়া ছবিতে অভিষেক

সপ্তাহ দুই আগের কথা। মগবাজারের একটি স্টুডিওতে চলছিল ‘নায়ক’ ছবির শেষ মুহূর্তের সম্পাদনা। সেখানে ছিলেন মৌসুমী, একটু পরেই এলেন অধরা। অধরাকে দেখে জড়িয়ে ধরলেন মৌসুমী। ‘আরো শুকিয়ে গেছিস? তোকে না বলেছি আরেকটু মোটা হতে! পর্দায় বেশি ভালো লাগত তাহলে।’ অধরাকে কিছু বলতে না দিয়েই আরো যোগ করলেন, “এমন এক্সপ্রেশন দিয়েছিস কেন ‘এলোমেলো’ গানটায়? কত করে বলে দিলাম, যত পারিস সাবলীল থাক, মনে কর আশপাশে ক্যামেরা নেই। বুঝেছি, তোকে কানমলা দিয়ে শেখাতে হবে। মুখে বলে হবে না।”

দুই ছবি নিয়ে বড় পর্দায় হাজির হচ্ছেন অধরা, টেনশনে তাঁর ঘুম নষ্ট হওয়ার কথা। উল্টো মৌসুমীই আছেন মহা টেনশনে। ‘জানি না, মৌসুমী আপু কেন আমাকে এতটা ভালোবাসেন! আমাকে নিয়ে সব সময়ই ভাবেন তিনি। তাঁর মতো অভিনেত্রীকে অভিভাবক হিসেবে পেয়ে আমি সত্যিই ধন্য। আশা করছি, তাঁর চাওয়া-পাওয়ার মূল্য দিতে পারব।’ শাকিব খানও জানিয়েছেন শুভকামনা। বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানে শাকিবের সঙ্গে দেখা হয়েছে। প্রতিবারই শাকিব জানিয়েছেন, অধরার ছবি দেখার জন্য মুখিয়ে আছেন।

অধরার শুরুটা খুবই সাদামাটা। মিরপুরের একটি নাচের স্কুলে ভর্তি হয়েছিলেন। সেখানে নাচ শেখাতেন চলচ্চিত্রের কোরিওগ্রাফার নূহরাজ। তিনিই অধরাকে নায়িকা হওয়ার স্বপ্ন দেখান। নূহর আমন্ত্রণে চলচ্চিত্রের বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানে গিয়েছিলেন। এমন এক অনুষ্ঠানেই পরিচালক শাহীন সুমনের সঙ্গে পরিচয়। সুমনের ‘পাগলের মতো ভালোবাসি’তে প্রথম দাঁড়ান ক্যামেরার সামনে। নায়ক সুমিত ও আসিফ নূর। আগামী সপ্তাহে সেন্সরে যাবে ছবিটি। প্রথম ছবি মুক্তির আগেই মুক্তি পেতে যাচ্ছে চুক্তিবদ্ধ হওয়া দ্বিতীয় ছবি ‘মাতাল’ ও তৃতীয় ছবি ‘নায়ক’। কেমন লাগছে? ‘একদিকে আমি যেমন এক্সাইটেড তেমন টেনশনেও আছি। একসঙ্গে দুটি ছবি মুক্তি পাচ্ছে। স্বপ্নেও ভাবিনি এমন অভিষেক হবে! একটু ভয়ও পাচ্ছি। দর্শকমন বোঝা বড় কঠিন। তাঁরা কখন কোন ছবিটা গ্রহণ করেন বলা মুশকিল। যদি মুখ ফিরিয়ে নেন, তাহলে বিপদে পড়ে যাব’—বললেন অধরা।

‘নায়ক’ মুক্তির আগেই ইস্পাহানি আরিফ জাহান তাঁর নতুন ছবি ‘ড্রিমগার্ল’-এ নায়িকা করেছেন অধরাকে। এই ছবি নিয়ে রীতিমতো উত্তেজিত নায়িকা! “অভিষেক দুই ছবিতে আমার নায়ক বাপ্পী ও সাইমন। ‘ড্রিমগার্ল’-এ দুজনকে একসঙ্গেই পাচ্ছি। আগে অনেকেই এই দুই নায়ককে এক ছবিতে নিতে চেয়েছিলেন, কিন্তু সফল হননি। এবারই প্রথম তাঁরা একসঙ্গে অভিনয় করবেন। এই ছবি সফল হবে বলেই আমার বিশ্বাস”—বললেন অধরা।

নতুন আরো দুটি ছবির ব্যাপারে কথা চলছে। দুটি ছবিই বড় বাজেটের। মুক্তি পেতে যাওয়া দুই ছবির প্রচার-প্রচারণা নিয়ে এত ব্যস্ত থাকতে হচ্ছে যে এখন পর্যন্ত নতুন ছবির গল্প শোনার সময় করে উঠতে পারছেন না। পরিচালকদের অনুরোধ করে একটা সপ্তাহ চেয়ে নিয়েছেন। এই যে ব্যস্ত সময়, অনবরত সাংবাদিকদের ফোন, টেলিভিশনে সাক্ষাৎকার—নিশ্চয়ই পরিবারের সবাই খুব উপভোগ করছে? অধরা বলেন, ‘না, না! শুরুতে তো তারা অভিনয় করতে দিতেই চায়নি। বলেছি শখের বশে দু-একটি ছবিতে অভিনয় করব। কিন্তু এখন যে চলচ্চিত্রকে পেশা হিসেবে নিতে চাইছি, এটা জানতে পারলে রক্ষা আছে?’



মন্তব্য