kalerkantho

facebook থেকে

৪ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:০০



facebook থেকে

সালামান্ডার

সালামান্ডার

ক্রাইম, থ্রিলার

বেলজিয়াম

 

♦ ৬৬টি সেফ ডিপোজিট বক্স ভেঙে ভেতরের সব জিনিসপত্র ডাকাতি হয়ে যায় একটি বেসরকারি ব্যাংক থেকে। বক্সগুলোয় ছিল দেশের সব মাথার গোপন ছবি, নথিপত্র; যা একবার জনসমক্ষে এলে দেশের ইতিহাসই পাল্টে যাবে, বেলজিয়াম বিশৃঙ্খল হয়ে যাবে। ক্ষমতাধর এসব লোক পুলিশকে জানাতেও পারছে না বক্সের ভেতরের কনটেন্টের কারণে। ডাকাতদেরও কোনো হদিস নেই। ইনস্পেক্টর পল জেরাল্ডির এক ইনফর্মার কোনো এক ভাবে ডাকাতি সম্পর্কে জানতে পারে। কিন্তু ব্যাংক ডাকাতির ঘটনা পুরোপুরি অস্বীকার করে। এর মধ্যেই বহুদিনের পুরনো এক সিক্রেট ব্রাদারহুড মাথাচাড়া দিয়ে উঠতে থাকে। ডাকাতির ঘটনা ধামাচাপা দেওয়ার জন্য তারা যে কোনো কিছু করতে পারে। এদিকে ডাকাতদলেও আছে ঠাণ্ডা মাথার এক খুনি, খুবই ক্যালকুুলেটিভ তার কাজ-কারবার (অনেকটা ড্যান ব্রাউনের বইয়ের খুনিদের  মত)। প্রথম দিকে পাত্তা না দিলেও কয়েকটা হত্যা আর আত্মহত্যার (সেই ইনফর্মার ) ঘটনা পলের টিকি নাড়িয়ে দেয়। ডিপার্টমেন্ট থেকে সাহায্য না পাওয়ায় নিজের মতো সে তদন্ত শুরু করে। ২৪ ধাঁচের এই সিরিজটির মধ্যে বেশ কিছু টুইস্ট আছে, যার পরিধি ইতিহাস থেকে বর্তমান পর্যন্ত বিস্তৃত। ১২ পর্বের সিজন ১। কাহিনির সমাপ্তি ১২ পর্বেই দেওয়া হয়েছে। সিজন ২ এখনো দেখা হয়নি। অ্যাকশন থ্রিলারপ্রেমীদের জন্য রেকমেন্ডেড।

 

তাজিম রহমান নিশীথ

সিরিয়ালখোর গ্রুপের পোস্ট

 



মন্তব্য