kalerkantho


প্রতিবাদী ব্রি

অভিনেত্রী হিসেবে ভক্তদের মনে জায়গা পেয়েছিলেন আগেই, এবার নারী অধিকার নিয়ে সোচ্চার হয়ে ভাসছেন প্রশংসার জোয়ারে। আগামীকাল ‘কং : দ্য স্কাল আইল্যান্ড’-এর মুক্তি উপলক্ষে ব্রি লারসনকে নিয়ে লিখেছেন হাসনাইন মাহমুদ

৯ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



প্রতিবাদী ব্রি

৮৯তম অস্কারের আসর। মঞ্চে গতবারের সেরা অভিনেত্রী ব্রি লারসন ঘোষণা করবেন এবারের সেরা অভিনেতার নাম। ধীরে ধীরে খাম থেকে কার্ড বের করে ঘোষণা করলেন। ‘ম্যানচেস্টার বাই দ্য সি’র জন্য কেসি অ্যাফ্লেক মঞ্চে উঠে পুরস্কার নিলেন ব্রির হাত থেকে। কিন্তু সবাইকে অবাক করে দিয়ে পুরস্কার দিয়ে নীরবে দাঁড়িয়ে থাকলেন ব্রি। কোনো উচ্ছ্বাস নেই, হাতহালি নেই, মুখটা যেন বিষাদে ঢাকা। রহস্য উদ্ঘাটিত হলো পরে। নারীদের অধিকার রক্ষার আন্দোলনে সরব এবং যৌন নির্যাতনের বিরুদ্ধে সর্বদা প্রতিবাদী ব্রি কোনোভাবেই মেনে নিতে পারছিলেন না কেসির অস্কার জয়। কারণ  অভিনেতার বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ করেছিলেন দুই সহকর্মী। অনেক দিন ধরেই নারী আন্দোলনে জড়িত ব্রি। তাঁর মতে, তারকারা এসব প্রচারণায় যুক্ত হলে সেটার প্রভাব অনেক বেশি, ‘হলিউডে থেকে এই কাজটা করা সহজ।

পৃথিবীর মানুষের চোখে আমরাই তারকা। সত্যি কথা বলতে, রাজনীতিবিদরাও ভয় পান আমাদের। তাই এসব ব্যাপারে আমরা এগিয়ে এলে সমাজে ব্যাপক প্রভাব পড়তে বাধ্য। ’  

অভিনয়, নারী অধিকারকর্মীর বাইরেও ব্রির আরেক পরিচয় গায়িকা। পেশাদার গায়িকা হিসেবেও তিনি কম জনপ্রিয় নন। এক যুগ আগে গায়িকা হিসেবেই ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন! পুরো ক্যারিয়ারেই অবশ্য একসঙ্গে অনেক কিছু করার চেষ্টা করেছেন। গানে একটু কম সময় দিয়ে অভিনয় শুরু করেন। কিন্তু সেখানেও খুব সাফল্য পাচ্ছিলেন না। জনপ্রিয় অনেক চলচ্চিত্রে পার্শ্বচরিত্রে অভিনয় করলেও কোনোভাবেই পাদপ্রদীপের আলোয় আসতে পারছিলেন না।

 ২০১৫ সালের ‘রুম’ই তাঁকে নতুন শুরু এনে দেয়। আততায়ীর হাতে সাত বছর ধরে একটি কক্ষে বন্দি জয়ের ভূমিকায় অনবদ্য অভিনয় তাঁকে অস্কার এনে দেয়। পাশাপাশি জয় করেন বাফটা, গোল্ডেন গ্লোব ও স্ক্রিন অ্যাক্টরস গিল্ড। ‘রুম’ সাফল্যের পরই সুযোগ পান বিগ বাজেটের  ‘কং : দ্য স্কাল আইল্যান্ড’, ‘ফ্রি ফায়ার’-এর মতো ছবিতে। চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন মার্ভেলের সঙ্গেও। ২০১৮ সালে ‘অ্যাভেঞ্জারস : ইনফিনিটি ওয়ার’-এ তাঁকে দেখা যাবে নারী সুপারহিরো ক্যাপ্টেন মার্ভেলের ভূমিকায়।

অভিনয়ের পাশাপাশি পরিচালনাও শুরু করতে যাচ্ছেন। শিগগিরই ‘ইউনিকর্ন স্টোর’ নামে একটি চলচ্চিত্রের পরিচালকের চেয়ারে বসবেন ব্রি।

আগামীকাল মুক্তি পাচ্ছে ব্রির নতুন ছবি ‘কং : দ্য স্কাল আইল্যান্ড’। ১৯০ মিলিয়ন ডলার বাজেটের এই চলচ্চিত্রে একজন ফটোসাংবাদিক তিনি। ১৯৩৩ সালে ‘কিং কং’ মুক্তির পর চরিত্রটি সর্বকালের অন্যতম জনপ্রিয় দানো চরিত্রে পরিণত হয়। পর্দা, মঞ্চে আরো অনেকবার দেখা গেছে এপদের রাজা কিং কংকে। সর্বশেষ পিটার জ্যাকসনের পরিচালনায় ২০০৫ সালে মুক্তি পাওয়া ‘কিং কং’ পৃথিবীজুড়ে আয় করে প্রায় ৫৫ কোটি মার্কিন ডলার। এবারের চলচ্চিত্রটি ইউনিভার্সালের ‘মনস্টার ইউনিভার্স’-এর দ্বিতীয় কিস্তি। ২০১৪ সালে মুক্তি পাওয়া ‘গডজিলা’ দিয়ে এই ‘মনস্টার ইউনিভার্স’-এর শুরু হয়। গডজিলার প্রিকুয়েল এই চলচ্চিত্রে ব্রি লারসনের পাশাপাশি আছেন টম হিডলস্টোন, স্যামুয়েল এল জ্যাকসন, জন গুডম্যানের মতো তারকারা।

একটি দ্বীপে কং নামের এক দৈত্যাকৃতির এপের রাজত্ব, অন্যান্য দানবকে দাবিয়ে রাখার লড়াই এবং দ্বীপে আসা মানুষের সঙ্গে সম্পর্কের বিভিন্ন দিক নিয়েই এগিয়ে চলেছে জর্ডান ভট-রবার্টস পরিচালিত এই চলচ্চিত্রের কাহিনি। হাওয়াইয়ে চিত্রায়িত এই চলচ্চিত্রটি বক্স অফিসেও ঝড় তোলার আভাস দিচ্ছে।

 


মন্তব্য