kalerkantho

রবিবার। ৪ ডিসেম্বর ২০১৬। ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


কাচের দেয়ালে, আগুন

পাঁচ বছর পর ঈদে একক অ্যালবাম নিয়ে ফিরেছেন আগুন। এখন অভিনয়েই তাঁর ব্যস্ততা বেশি। ছেলে মিছিলও আসছে গানে। লিখেছেন আতিফ আতাউর

২০ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



কাচের দেয়ালে, আগুন

তিন গানের অ্যালবাম ‘কাচের দেয়াল’। একটি গানের শিরোনাম থেকে বেছে নিয়েছেন অ্যালবামের নাম।

ঈদে সংগীতার ব্যানারে প্রকাশ পেয়েছে এটি। একটি গানের কথা লিখেছেন ও সুর করেছেন আগুন। বাকি দুটি গানের কথা লিখেছেন জীবন চৌধুরী, সুর করেছেন রেজওয়ান শেখ।

আগে আগুনের সব অ্যালবামে আট থেকে দশটি গান থাকলেও এবারই প্রথম তিন গান দিয়ে অ্যালবাম করলেন। আগুন বলেন, ‘একটি বা দুটি গান নিয়ে অ্যালবাম করার বিষয়টা আমি নিজেও একটু কম বুঝি। এখন গান হয়ে গেছে ইউটিউব কেন্দ্রিক। ৮-১০ গানের অ্যালবাম করে কেউ বাজারে ছাড়েন না, এক-দুটি গান হলেই ইউটিউবে প্রকাশ করেন। যে কারণে এখন একটি দুটি গান দিয়েই অ্যালবাম করা যাচ্ছে। ’

‘কাচের দেয়াল’ নিয়ে আগুন বলেন, ‘দীর্ঘদিন ধরেই চেষ্টা করছিলাম নিজের একক বের করার। সংগীতা থেকে বলা হয় ঈদে তিনটা গান দিয়ে আমার একটি অ্যালবাম করতে চায়। এরপরই অ্যালবামটির কাজ শুরু করি। ’

দীর্ঘদিন পর একক অ্যালবাম, সাড়া কেমন পাচ্ছেন? আগুন বললেন, ‘ভালো সাড়া পাচ্ছি। ফেসবুক, ইউটিউবে গানগুলো নিয়ে বেশ মাতামাতি হচ্ছে। অনেকেই ফোন করে তাদের ভালোলাগার কথা জানিয়েছেন। ’

২০১০ সালে বেরিয়েছিল আগুনের সর্বশেষ অ্যালবাম ‘কী যে কান্না’। সেই হিসেবে ‘কাচের দেয়াল’ এর সঙ্গে ‘কী যে কান্না’র ব্যবধান দীর্ঘ পাঁচ বছরেরও বেশি। ‘একক না করলেও সিঙ্গেল গান করেছি। মিশ্র অ্যালবামেও কণ্ঠ দিয়েছি। সঙ্গে চলচ্চিত্রে প্লে-ব্যাক তো ছিলই। গানের মধ্যেই কিন্তু ছিলাম। ’

শুধু কি গানে? অভিনয়েও নিজেকে এগিয়ে নিয়েছেন অনেকখানি। শতাধিক নাটকে অভিনয় করেছেন, বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রেও। ‘অভিনয় করতে আমার ভালো লাগে। অভিনয় করে তৃপ্তি পাই। শুরুতে যদিও শখের বসে করেছি কিন্তু এখন আর শখ বলতে চাই না। নিজের পছন্দের আরেকটি কাজ বলতে চাই। অভিনয়ে আমার এখনো অনেক কিছু করা বাকি’—বললেন আগুন।

বড় সংগীত পরিবার থেকে উঠে এসেছেন। পারিবাহিক আবহই তাঁকে নিয়ে এসেছে গান ও অভিনয়ে। দুই ছেলে মিছিল, মশালও চলছে বাবার দেখানো পথেই। বড় ছেলে মিছিল মাত্রই দশম শ্রেণীতে উঠেছেন। গীটারে তার পারদর্শিতা মুগ্ধ করেছে বাবাকে। ছোটটাই বা বসে থাকবে কেন? সেও বাবা ও ভাইকে গাইতে দেখে গুণগুণ করে। ‘দুটো ছেলেই গাইতে ভালোবাসে—এটা আমাকে মুগ্ধ করেছে। ওরা গানে আসুক এটা যেমন চাই, তেমনি চাই গানের পাশাপাশি অন্য কিছুও করুক। ’ এটা কেন? আগুন বলেন, ‘গানকে এখন পেশা হিসেবে নেওয়া কঠিন। শুধু গান করে এখন জীবন নির্বাহ করা যায় না। ’

বাবার মতো অভিনয়েও নাম লিখিয়েছে মিছিল। নাটক ‘তপুর সাইকেল’ ও চলচ্চিত্র ‘অমি ও আইসক্রিমওয়ালা’য় অভিনয় করেছে সে।

গান নিয়ে সাম্প্রতিক ব্যস্ততা সম্পর্কে আগুন বলেন, ‘চলচ্চিত্রের প্লে-ব্যাক নিয়ে ব্যস্ততা। অচিরেই শ্রোতাদের একটি চমক দিতে চাই। ’ কী সেই চমক? আগুন বললেন, ‘চমক হিসেবেই থাক সেটা। আগে বলে দিলে তো আর চমকের ব্যাপারটা থাকছে না। হা হা হা। ’


মন্তব্য