kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


কার ছবি কার হাতে

নাঈমের বদলে ওমর সানী

পারিশ্রমিক, শিডিউল, চিত্রনাট্য, মান-অভিমান, ব্যক্তিগত পছন্দ অপছন্দ—কত কারণেই না ছবি ছেড়ে দেন প্রতিষ্ঠিত নায়ক-নায়িকারা। সুযোগ পেয়ে যায় নতুন কেউ, খুলে যায় ভাগ্য, জন্ম নেন নতুন কোনো তারকা। এমনই কিছু ছবি আর নায়ক-নায়িকার গল্প নিয়ে ধারাবাহিক এই আয়োজন। আজ থাকছে নাঈমের জায়গায় সুযোগ পেয়ে ওমর সানীর তারকা হওয়ার কথা

২৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



নাঈমের বদলে ওমর সানী

‘চাঁদের আলো’তে মুক্তি ও ওমর সানী

নাঈম-শাবনাজ জুটি তখন সুপারহিট। তাঁদের ‘চাঁদনী’ দারুণ ব্যবসা করেছে।

এই জুটি নিয়ে ‘চাঁদের আলো’ নির্মাণ করতে চাইলেন শেখ নজরুল ইসলাম। চিত্রনাট্য প্রস্তুত, শুটিংয়ের তারিখও চূড়ান্ত। এরই মধ্যে একদিন নজরুলকে ডেকে পাঠালেন সিনিয়র প্রযোজক-পরিচালক-অভিনেতা দারাশিকো। নজরুল গেলেন তাঁর অফিসে। ওমর সানীও আছেন সেখানে। অফিসে ঢুকেই দেখলেন সানীকে, খুব বিষণ্ন মনে বসে আছেন। নজরুলকে বসতে বললেন দারাশিকো। তারপর সানীকে দেখিয়ে বললেন, “নজরুল, এই ছেলেকে নিয়ে ‘সুজন বাঁশি’ ছবি শুরু করেছিলাম। কয়েক দিন শুটিংও হয়। কিন্তু তোজাম্মেল হক বকুলের কথায় ছবিটি বন্ধ করে দিয়েছি। পরে বকুলকে দিয়ে ‘দিলরুবা’ বানিয়ে কী পরিমাণ টাকা ক্ষতি হয়েছে তা তুমি তো জানো। ছেলেটিকে নিয়ে নতুন ছবি বানাব সেই সামর্থ্য নেই। শুনেছি, তুমি নতুন ছবি করছ। যদি পারো ওকে একটু সুযোগ করে দাও। ”

দারাশিকোকে খুব সম্মান করতেন নজরুল। পরদিন সানীকে বাসায় যেতে বললেন নজরুল। যথাসময়ে সানী হাজির। কিন্তু বাসায় ঢুকেই ভয় পেয়ে গেলেন। এ টি এম শামসুজ্জামান, রাজীব ও মিজু আহমেদের মতো অভিনেতারা সেখানে বসা। সবার সঙ্গে সানীকে পরিচয় করিয়ে দিলেন নজরুল। এরপর কয়েকটি দৃশ্যে অভিনয় করে দেখাতে বললেন। সানী করলেন। সবাই বাহবা দিলেন। কিন্তু ঝামেলা বাঁধলো শরীর নিয়ে। গল্পে নায়ককে চিকন দেখাতে হবে। কিন্তু সানী দেখতে বেশ মোটা। পরিচালকের কাছে ১৫ দিন সময় চেয়ে নিলেন সানী। প্রায় ১০ কেজি ওজন কমিয়ে আবার দেখা করলেন। সানীকে দেখে পছন্দ করলেন সবাই। শুরু হলো শুটিং।

তবে নাঈমের পরিবর্তে সানীকে নেওয়ায় চ্যালেঞ্জের মুখে পড়তে হলো পরিচালককে। নাঈম-শাবনাজের বেশ কয়েকটি ছবি তখন হিট করেছে। তাঁদের সামনে কি সানী-মুক্তি জুটি দাঁড়াতে পারবে? ছবি না চললে ইন্ডাস্ট্রিতে টিকে থাকাই মুশকিল হবে। পরিচালক প্রতিটি দৃশ্যের শুটিং করলেন বাড়তি যত্ন নিয়ে। অবশেষে ১৯৯৩ সালে মুক্তি পেল ‘চাঁদের আলো’। প্রথম সপ্তাহেই সুপারহিট। ছবির গান ভীষণ জনপ্রিয়তা পেল। আর সানীরও ভাগ্য বদলে গেল, হয়ে গেলেন তারকা।


মন্তব্য