kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


আমার কাছে ও জীবিত

স্মরণে সালমান শাহ

৬ সেপ্টেম্বর সালমান শাহর ২০তম মৃত্যুবার্ষিকী। ঢাকাই চলচ্চিত্রের তুমুল জনপ্রিয় এই নায়ককে স্মরণ করে পূর্ণপৃষ্ঠার এই বিশেষ আয়োজন

১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



স্মরণে সালমান শাহ

‘বিচার হবে’ ছবির দৃশ্যে সালমানের সঙ্গে শাবনূর

শাবনূর

সালমান-মৌসুমী তখন হিট জুটি। হঠাৎ দুজনের মধ্যে যেন কী হলো! সালমান ঘোষণা দিল, মৌসুমীর সঙ্গে আর ছবি করবে না।

এদিকে জহিরুল হক তাঁদের নিয়ে ছবি করার পরিকল্পনা করলেন। সালমান তাঁকে বুঝিয়ে আমার কাছে আনল। প্রথম ছবি ফ্লপ করার পরে তখন পায়ের তলায় মাটি ছিল না। কী করব ভেবে পাচ্ছিলাম না। ঠিক তখনই অন্ধকার থেকে আমাকে তুলে আনল। ওর সঙ্গে আমার প্রথম ছবি ‘তুমি আমার’। মুক্তির পরই ভাগ্য ঘুরে দাঁড়াল। মাত্র দুই বছরে সালমানের সঙ্গে ১৪টি ছবি সাইন করলাম।

চলচ্চিত্রে ওই আমার অভিভাবক ছিল। সব সময় গাইড করত। আমাদের দুজনকে নিয়ে অনেক গুজব রটেছিল তখন। আমি ভেঙে পড়লে আমাকে বোঝাত। বলত, ‘আমাদের বাজার আছে বলেই মানুষ এত রটনা রটাচ্ছে। এটাকে পজিটিভলি নাও। আরো তো নায়ক-নায়িকা আছে, ওদের নিয়ে তো কেউ কিছু বলছে না!’

সালমানের মৃত্যুর পর অনেকের সঙ্গে আমার জুটি হয়েছে, ওদের সঙ্গেও অনেক ছবি হিট করেছে; কিন্তু কোনোটাই সালমান-শাবনূর জুটিকে ছাড়িয়ে যেতে পারেনি। আমাদের চেষ্টার ত্রুটি ছিল না। আসলে চাইলেই জুটি তৈরি করা যায় না, ভক্তদের ভালোবাসা লাগে। সালমানের ভক্তরা তার জন্য পাগল, মরতেও রাজি।

সালমান সশরীরে নেই ২০ বছর হলো, কিন্তু আমার কাছে ও সব সময়ই জীবিত। ওর হাসি, কথা বলার ভঙ্গি, স্টাইল—এখনো চোখে ভাসে। এমন মানুষের মৃত্যু হতে পারে না।

অনুলিখন : সুদীপ কুমার দীপ

 

 

 


মন্তব্য