kalerkantho

শনিবার । ৩ ডিসেম্বর ২০১৬। ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।

রানি হবেন

রানী

মডেলিং থেকে অভিনয়ে। দীপ্ত টিভির ধারাবাহিক ‘পালকী’ দিয়ে পরিচিতি। লক্ষ্য এবার চলচ্চিত্র। রানী আহাদকে নিয়ে লিখেছেন মীর রাকিব হাসান

১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



রানী

এত মানুষের সামনে কিভাবে অভিনয় করব! আমার জন্য একটা দৃশ্যের ৩২ বার টেক নিতে হয়েছে। পরিচালকসহ সবাই বোঝালেন—তুমি পারবে, আরেকটু মনোযোগী হও। এরপর পেরেছিলাম। আর এখন তো কোনো ঝামেলাই হয় না

অভিনয় তিনি শেখেননি, তবে গানটা শিখেছেন। স্কুলে ভর্তি হওয়ার আগেই হারমোনিয়াম কিনে দিয়েছেন মা-বাবা।

ওস্তাদের কাছে গিয়ে তালিম নিয়েছেন। শিখেছেন নাচ, বাদ যায়নি কারাতেও। বড় হয়ে সব কিছু বাদ দিয়ে মনোযোগী হলেন শুধু লেখাপড়ায়।

উচ্চতর শিক্ষা নিতে গেছেন মালেয়শিয়া ও নিউজিল্যান্ডে। মায়ের স্ট্রোকের খবর পেয়ে ফিরে এলেন দেশে। মা সুস্থ হতে না হতেই বাবার স্ট্রোক। আর যাওয়া হলো না বিদেশে। ছোট বোন তখন ‘ও’ লেভেলে। ভাবলেন, বোনের ‘এ’ লেভেল শেষ হলে দুজন একসঙ্গে বিদেশে যাবেন। এই ফাঁকে দেশে বাবার ব্যবসা দেখাশোনায় মন দিলেন। এক ফটোগ্রাফার বন্ধুর অনুরোধে কিছু ছবি তুললেন। বেশ সুন্দর হয়েছে ছবিগুলো। পোস্ট করলেন ফেসবুকে। একের পর এক মডেলিংয়ের প্রস্তাব আসতে থাকল। ভিজ্যুয়াল মিডিয়ায় প্রথম মুখ দেখান মাহমুদ সানীর গান ‘হৃদয় জানে’র ভিডিওতে। একে একে বেশ কিছু গানে মডেল হয়েছেন। বিজ্ঞাপনেরও মডেল হলেন। এর মধ্যে ওয়ালটনের বিজ্ঞাপনটি বেশ সুনাম কুড়িয়েছে। টিভি নাটকের আগেই এলো বড় পর্দার প্রস্তাব! ‘না’ করে দিলেন। ‘অভিনয় কি চাট্টিখানি কথা! তার ওপর বড় পর্দা। আমাকে দিয়ে এখনই হবে না। মডেলিং করছি, এই বেশ। নিজেকে গোছানোর পর সময়-সুযোগ বুঝে অভিনয়ে নামা যাবে’—নিজেকে এভাবেই বোঝাতেন রানী।

কিন্তু দীপ্ত টিভির কারণে চলে এলেন অভিনয়ে। ‘পালকী’ সিরিয়ালের জন্য নতুন অভিনেত্রী খুঁজছে চ্যানেলটি। রানীকে প্রস্তাব দিলেন একজন। বললেন, ‘চরিত্রটিতে আপনাকে খুব মানাবে। আমাদের সঙ্গে একবার দেখা করুন। ’ একবারে কাজ হলো না। বেশ কয়েকবার যোগাযোগ করার পর মন গলল রানীর। অডিশনের দিন মাকে সঙ্গে নিয়ে গেলেন। গিয়ে দেখেন, এলাহি কারবার! অনেক মেয়ে অপেক্ষা করে আছে। এত ভিড় দেখে ঘাবড়ে গেলেন। কিন্তু তিনিই সিলেক্ট হয়ে গেলেন। ৯ মাস চলল গ্রুমিং।

প্রথম দিন শুটিংয়ের অভিজ্ঞতা কেমন ছিল? ‘ভয়াবহ! কিছুতেই পারছিলাম না। এত মানুষের সামনে কিভাবে অভিনয় করব! আমার জন্য একটা দৃশ্যের ৩২ বার টেক নিতে হয়েছে। পরিচালকসহ সবাই বোঝালেন—তুমি পারবে, আরেকটু মনোযোগী হও। এরপর পেরেছিলাম। আর এখন তো কোনো ঝামেলাই হয় না। কত বড় বড় দৃশ্য এক টেকেই করে ফেলি’—বললেন রানী।

২৫০ পর্ব পেরিয়েছে ‘পালকী’। দীপ্ত টিভির বাইরেও অভিনয় করছেন রানী। তাঁর অভিনীত উল্লেখযোগ্য নাটকের মধ্যে রয়েছে ‘বাইসাইকেল’, ‘কালো মেয়ের গল্প’, ‘মনে যা কিছু ঘটে’, ‘মনচোর’। তিনি বলেন, ‘অনেকে মনে করেন দীপ্ত টিভি তাদের সিরিয়ালের সবাইকে বেঁধে রেখেছে। ব্যাপারটা তা নয়। সময় মিলিয়ে যদি বাইরে কাজ করতে পারে তাহলে কোনো নিষেধাজ্ঞা নেই। ’

রানীর ভবিষ্যৎ ইচ্ছা চলচ্চিত্রের রানি হবেন। বাণিজ্যিক ঘরানার নাচ-গানের সিনেমাই তাঁর পছন্দ। ‘আমাদের এখন হলিউড-বলিউডের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে অভিনয় করতে হবে। চরিত্র তৈরি করতে হবে। প্রতিযোগিতা করতে হবে। শিল্পীদের তো সুযোগ নেই এগুলো পরিবর্তন করার। গল্পকার-পরিচালকরাই করবেন এগুলো। আর আমরা সেখানে মনোযোগ দিয়ে কাজটা করতে পারলেই ভালো কাজ বের হবে’—বললেন রানী।

দুটি চলচ্চিত্রে অভিনয়ের কথা চলছে। ঈদের পরই ফাইনাল হবে। এর মধ্যে একটি বাংলাদেশ-ভারত যৌথ প্রযোজনার।

কিছুদিন আগে এক বিড়ম্বনায় পড়েছিলেন। একজন ফেসবুকে ইনবক্স করে বললেন, ‘তুমি সেদিন আসলে না কেন? আম্মু-খালা আর আমি রেস্তোরাঁয় তোমার জন্য অপেক্ষা করেছি। ’ রানী তো অবাক! লোকটা কথা বলেই যাচ্ছে। ফোন নম্বর চাইল। ‘ব্যাপারটা কী জানার জন্য বললাম, আপনার নম্বর দিন। আমিই কল দিচ্ছি। আমার ভাইয়ের নম্বর থেকে কল দিলাম। কথা বলে বুঝলাম, কেউ একজন আমার ছবি দিয়ে ফেসবুকে আইডি খুলে তার সঙ্গে যোগাযোগ করেছে। প্রেমও হয়েছে তাঁদের! প্রেমে দিওয়ানা হয়ে লোকটা এখন ঘুরছে। আমি যে সেই মেয়ে না, এটা বোঝাতে ১৫ দিন সময় লেগেছে। আমার ভাইয়ের ফোনে প্রতিদিন কল দিত। এটা আসলেই একটা বিরক্তিকর অভিজ্ঞতা। ’


মন্তব্য