kalerkantho


৫ ক্রিকেটকন্যা

চলছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। ময়দানি লড়াইয়ে মাঠ কাঁপাচ্ছেন মাশরাফি-সাকিবরা। খেলার শুরুতে, মধ্যে কিংবা শেষে টিভিতে ক্রিকেট বিশ্লেষণে ব্যস্ত হয়ে ওঠেন এই পাঁচ ক্রিকেটকন্যা। লিখেছেন সাইমুম সাদ

১৭ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



৫  ক্রিকেটকন্যা

মারিয়া নূর

ভাবনার পুরোটা জুড়েই ক্রিকেট

মারিয়া নূর

শুরুটা রেডিও জকি হিসেবে। পরিচিতির গণ্ডিটাও ছিল আর দশজন আরজের মতো। মূলত মারিয়ার জীবনের বাঁক বদল হলো ‘বিক্রয়ডটকম’-এর বিজ্ঞাপনচিত্রে মডেল হয়ে। বাংলাদেশের খেলার মাঝখানে টানা চলত এই বিজ্ঞাপন। পেলেন পরিচিতি এবং একই সঙ্গে উপস্থাপনার সুযোগ। উপস্থাপনা বলতে শুধুই ক্রিকেট। বাংলাদেশের খেলা থাকলেই পর্দায় হাজির। বর্তমানে গাজী টিভিতে করছেন ‘ক্রিকেট ৩৬০’। ‘বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের সাবেক ও বর্তমান ক্রিকেটারদের নিয়ে আড্ডা দিচ্ছি এই অনুষ্ঠানে। আড্ডায় উঠে আসছে ক্রিকেটারদের ব্যক্তিগত জীবন, পরিবার, বন্ধু, ড্রেসিংরুমের গল্প। অনেক ক্রিকেটারের খেলার বাইরে অন্যান্য প্রতিভা আছে। যেমন—কয়েক দিন আগের এক শোতে ক্রিকেটার আল আমিন গান গেয়ে শোনালেন। ’ বললেন মারিয়া।  

সমসাময়িকরা যখন টিভি নাটকে নিয়মিত হচ্ছেন কিংবা সিনেমা করছেন, সেখানে তিনি শুধু ক্রিকেট নিয়ে আছেন। মাঝে দু-একটা নাটক করলেও সেটা অনুরোধের ঢেঁকি গেলার মতোই। ক্রিকেটের প্রতি তাঁর প্রেমটা ছোটবেলা থেকেই। ১৯৯৯ সালের আইসিসি চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে বাংলাদেশ যেদিন কেনিয়াকে হারাল, সেদিন থেকে। এখন মারিয়ার ভাবনার পুরোটাজুড়েই ক্রিকেট।

 

বাংলাদেশ ফাইনালে গেলেও অবাক হব না

শ্রাবণ্য তৌহিদা

শ্রাবণ্যর অনেক পরিচয়—মডেল, অভিনেত্রী ও ডাক্তার। তবে আলোচনায় এসেছেন ক্রিকেটবিষয়ক শো উপস্থাপনা করেই। গত বছর ওয়ানডে ক্রিকেট বিশ্বকাপ থেকে শুরু করেছেন উপস্থাপনা, এখনো চলছে। এখন করছেন গাজী টিভির ‘ক্রিকেট ম্যানিয়া’সহ তিনটি প্রোগ্রাম। দর্শকদের কাছ থেকে ভালোই সাড়া পাচ্ছেন বলে জানালেন, ‘মেয়ে হয়ে ক্রিকেট নিয়ে অ্যানালাইসিস করি বলে সবাই আপ্রিশিয়েট করছে। ’ ক্রিকেটই শ্রাবণ্যর ধ্যান-জ্ঞান। বিশ্ব ক্রিকেটের সাম্প্রতিক খবরাখবর রাখেন। এখন রাখছেন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের খবর। বাংলাদেশ দল নিয়ে বরাবরের মতোই আশাবাদী—‘বাংলাদেশ ওয়ানডেতে যেমন ভালো করছে তেমনি টি-টোয়েন্টিতেও ভালো করবে। বাছাই পর্ব খেলতে হয়েছে, এটা আমাদের জন্য অপমানজনক। কিন্তু বাংলাদেশ সুপার টেনে উঠেছে। ফাইনালে গেলেও অবাক হব না। বাংলাদেশের সেই যোগ্যতা আছে। ’ তার প্রিয় ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান। আর দেশের বাইরে শচীন টেন্ডুলকার। নিজেও একসময় ক্রিকেট খেলেছেন। ‘ছোটবেলায় পাড়ার ছেলেদের সঙ্গে ক্রিকেট খেলতে যেতাম বলে মার অনেক বকুনি খেয়েছি। ’ বললেন শ্রাবণ্য।

 

কাপটা হয়তো আমাদের থাকত

নাফিসা কামাল ঝুমুর

ক্রিকেটের সঙ্গে ঝুমুরের সখ্য খুব পুরনো নয়, বছরদুয়েক হলো। ‘টিনএজে ক্রিকেট পছন্দ ছিল না। ফুটবল খেলা দেখতাম নিয়মিত। গত দুই বছরে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের উন্নতির ফলে এখন ক্রিকেট এনজয় করি। ’ বললেন ঝুমুর। ক্রিকেটবিষয়ক শোতে তাঁর অভিষেক মাসদুয়েক আগে। আইসিসি অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ থেকে। জিটিভির নিয়মিত আয়োজন ‘ক্রিকেট এক্সট্রা’য় দেখা গেছে তাঁকে। এরপর এশিয়া কাপে ব্যস্ত ছিলেন ‘ক্রিকেট হাইলাইটস’ নিয়ে। বাংলাদেশ টিম নিয়ে আশাবাদী ঝুমুরও, ‘এশিয়া কাপের রানারআপ বাংলাদেশ। আরেকটু এফোর্ট দিতে পারলে কাপটা হয়তো আমাদের থাকত। আশা করি এই বিশ্বকাপেও মাশরাফিরা ধারাবাহিকতা দেখাবে। ’ ঝুমুরের প্রিয় ক্রিকেটার মাশরাফি। তামিম, তাসকিনের খেলাও ভালো লাগে।

 

ক্রিকেট নিয়ে পড়াশোনা করেছি

সামিয়া আফরিন

বর্তমানে ক্রিকেট শোগুলো নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করেছেন সামিয়া। এরই ধারাবাহিকতায় এবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও আছেন। উপস্থাপনা করছেন গাজী টিভির নিয়মিত প্রোগ্রাম ‘ক্রিকেট এক্সট্রা’ ও ‘ক্রিকেট ম্যানিয়া’। গাজী টিভিতে প্রচারিত শ্রীলঙ্কা প্রিমিয়ার লিগ দিয়েই তাঁর অভিষেক। ‘কিক অফ, গ্রামীণফোন ক্রিকেট স্টুডিওসহ আরো বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠান আমরাই বানাতাম। বিটিভিতেও সেগুলো প্রচারিত হয়েছে। কিন্তু সেখানে কখনো সামনে ছিলাম না। পরে অবশ্য ক্রিকেট নিয়ে পড়াশোনা করেছি। জানাশোনার পরিধিটা বাড়ায় নিজেই ক্রিকেট শো উপস্থাপনা করি। ’ মাঝেমধ্যে অভিনয়ে দেখা গেলেও তাঁর আসল লক্ষ্য ক্রিকেট শো উপস্থাপনা। ক্যাট ডিল, মন্দিরা বেদির উপস্থাপনা তাঁর ভালো লাগে। আর দেশের মধ্যে শারমিন লাকির।

 

ক্রিকেটের অনেক নিয়ম-কানুনই জানতাম না

মুমতাহিনা টয়া

টয়ার প্রিয় খেলা ক্রিকেট। খেলেছেন বন্ধুদের সঙ্গে। আর দেশের মাটিতে মাশরাফিদের খেলা থাকলে সচরাচর মিস করেন না। হাজির হন মাঠেও। এবারের অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ দিয়েই ক্রিকেট শো উপস্থাপনায় অভিষেক, গাজী টিভির ‘ক্রিকেট এক্সট্রা’য়। তাঁর সঙ্গে ছিলেন সাবেক ক্রিকেটার, নির্বাচকরা। ‘শো করার আগে ক্রিকেট নিয়ে রীতিমতো গবেষণা করেছি। অবাক হলাম, ক্রিকেট এত ভালোবাসি অথচ ক্রিকেটের অনেক নিয়ম-কানুনই জানতাম না। ’ বললেন টয়া।


মন্তব্য