kalerkantho


তাঁহাদের আবদার

তারকা বলেই কি না কখনো কখনো অদ্ভুত সব আবদার করে বসেন তাঁরা। তাঁদের মধ্যে কেউ মাটির কাছাকাছি থেকে বিনয় দেখান তো কেউ আবার ভালোবাসেন ঠাট-বাট দেখাতে। তেমন কিছু বলিউড তারকার অদ্ভুত আবদারের কথা জানাচ্ছেন আনিকা জীনাত

১৬ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



তাঁহাদের আবদার

কারিনা কাপুর

নাক উঁচু হিসেবে বেশ ভালোই সুনাম আছে কারিনা কাপুর খানের। বলিউডের প্রথম সারির নায়িকা হওয়ার পথে যতই এগিয়েছেন, প্রযোজকদের কাছে কারিনার আবদার কিংবা শর্তের তালিকাটিও হয়েছে দীর্ঘ থেকে দীর্ঘতর।

এই তালিকার প্রধানতম অবদার হচ্ছে—‘এ’ গ্রেডের তারকা ছাড়া কারো সঙ্গেই জুটি বাঁধবেন না। আর এ কারণেই দ্বিতীয় সারির অভিনেতাদের সঙ্গে কাজ করতে দেখা যায় না কাপুর খানদানের ছোট মেয়েটিকে।

 

সালমান খান

চুম্বনের দৃশ্য থাকলে সেই ছবিতে অভিনয় করেন না সালমান খান। একই নীতি মেনে চলছেন কয়েক বছর ধরে। ইদানীং এই আবদারের সঙ্গে যুক্ত হয়েছে পর্দায় চড় না খাওয়ার শর্তও। বলিউডের এই ভাইজান কোনোভাবেই অভিনয়ের সময় অন্য কোনো অভিনেতার হাতে থাপ্পড় খেতে রাজি নন।

 

কঙ্গনা রানাওয়াত

‘কুইন’ ছবির বদৌলতে বলিউডের রানি হয়েছেন কঙ্গনা রানাওয়াত। রানির মতো তাঁরও আছে নিজস্ব কিছু হিসাব-নিকাশ। আর তাই তো কঙ্গনা এখন সরাসরি কারো ফোনকল রিসিভও করেন না আবার কাউকে সরাসরি উত্তরও দেন না।

তাঁর হয়ে কথা বলার কাজটা করে থাকেন তাঁর সহকারীরা।

 

হৃতিক রোশান

বলিউড হার্টথ্রুব হূতিক রোশানের একজন নিজস্ব বাবুর্চি আছেন। যিনি হূতিকের পারিবারিক অনুষ্ঠান থেকে শুরু করে ভ্রমণ কিংবা শুটিং—সব জায়গায়ই হূতিকের জন্য খাবার তৈরি করেন। নিজের শরীরটা ফিট রাখতেই হূতিকের এই বিশেষ ব্যবস্থা। হূতিকের সঙ্গে কাজ করার আরেকটা পূর্বশর্ত হলো শুটিং স্পটের আশপাশে ভালো মানের একটি জিমনেশিয়াম থাকতে হবে। আউটডোর শুটিংয়ের সময়ও তাঁর এই শর্ত বহাল থাকে।

 

অক্ষয় কুমার

বলিউডের খিলাড়ি তারকা অক্ষয় কুমার নিজের দৈনন্দিন রুটিন খুব কঠোরভাবে মেনে চলেন। পরিশ্রমী ও দায়িত্বশীল হিসেবে তাঁর একটা পরিচিতিও আছে। তাঁর শর্তটি কিছুটা চাকরিজীবীদের মতো। নিয়মিত কাজ করার ফাঁকে তাঁর একটি সাপ্তাহিক ছুটি চাই। আর সেটা হচ্ছে রবিবার। আর অক্ষয়ের কাছে ‘সানডে’ মানে ‘ফান ডে’। এই দিন তিনি কাজ করেন না। কাজের প্রতি নিষ্ঠাবান হওয়ায় পরিচালক, প্রযোজক কারোরই এ নিয়ে কোনো আপত্তিও থাকে না।

 

সোনাক্ষি সিনহা

সালমান খানের মতো তিনিও কোনো ছবিতে চুম্বনের দৃশ্য থাকলে সেই ছবিতে অভিনয় করেন না। এখন পর্যন্ত ‘দাবাং কন্যা’ সোনাক্ষি সিনহা কোনো ছবিতে চুম্বনের দৃশ্যে অভিনয় করেননি। এই আবদার কত দিন পর্যন্ত ধরে রাখতে পারেন সেটাই দেখার বিষয়।


মন্তব্য