kalerkantho

সড়কের মরা গাছ এখন মরণফাঁদ

রায়পুরা (নরসিংদী) প্রতিনিধি   

২৫ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সড়কের মরা গাছ এখন মরণফাঁদ

নরসিংদীর রায়পুরা-বারৈচার আঞ্চলিক সড়কের বৌয়ালমারায় দুই শতাধিক শিশুগাছ মারা গেছে। ছবি : কালের কণ্ঠ

নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার রায়পুরা-বারৈচার আঞ্চলিক সড়কের বৌয়ালমারা অংশে দুই শতাধিক শিশুগাছ মারা গেছে। সড়কের দুই পাশে প্রাণহীন গাছগুলো কঙ্কালের মতো দাঁড়িয়ে রয়েছে। মরা গাছগুলোতে ঘুণ পোকারা বাসা বেঁধেছে। আর অতিমাত্রায় পচন ধরায় কিছু কিছু গাছের গোড়ার দিকের অংশ খসে পড়ছে। সামনে আসছে কালবৈশাখী। তাই গাছগুলো দ্রুত অপসারণ করা না হলে দুর্ঘটনা ঘটার আশঙ্কা রয়েছে।

কয়েকজন পথচারী জনায়, দুই বছর ধরে গাছগুলো এ অবস্থায় রয়েছে। অল্প ঝড়-বৃষ্টিতেই গাছের মরা ডালপালা ভেঙে পড়ছে। ফলে মাঝেমধ্যেই যাত্রীরা আহত হচ্ছে। তা ছাড়া মরা গাছ রাস্তার ওপর পড়ে থাকার কারণে অনেক সময় দীর্ঘ যানজটেরও সৃষ্টি হয়। এতে যাত্রীদের চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

স্থানীয় কাজী আকরামুল হক সৌরভ বলেন, ‘আমি রায়পুরা-বারৈচা আঞ্চলিক সড়ক দিয়ে নিয়মিত যাতায়াত করি। এ সড়কের দুই পাশে কয়েক শ শিশুগাছ মৃত অবস্থায় ঝুঁকিপূর্ণভাবে দাঁড়িয়ে আছে। গাছের ডালপালা যেকোনো সময় পথচারীদের ওপর ভেঙে পড়ে মারাত্মক দুর্ঘটনা ঘটতে পারে। তাই গাছগুলো দ্রুত অপসারণ করা জরুরি হয়ে পড়েছে।’

এ ব্যাপারে অলিপুরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আল-আমিন ভূঁইয়া মাসুদ বলেন, ‘আমার ইউনিয়ন অংশে সড়কের দুই পাশে থাকা মরা গাছগুলো কাটার ব্যাপারে একাধিকবার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে অবহিত করেছি। কিন্তু এখন পর্যন্ত গাছগুলো কাটার উদ্যোগ নেননি। জনগণের নিরাপত্তার স্বার্থে দ্রুত গাছ কাটার জন্য কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করছি।’

রায়পুরা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম বলেন, ‘সড়ক ও জনপথ বিভাগ এবং বন বিভাগের কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলোচনা করে এসব গাছ কাটার বিষয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

 

 

মন্তব্য