kalerkantho


বিএসএফের গুলিতে আহত ৪ বাংলাদেশি

হাতীবান্ধা (লালমনিরহাট) প্রতিনিধি   

১৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০



লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) ছোড়া ‘চিটা গুলির’ (রাবার বুলেটের মতো) আঘাতে এক নারী ও স্কুলছাত্রসহ চার বাংলাদেশি আহত হয়েছে। আহতদের হাতীবান্ধা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। এ নিয়ে গতকাল শনিবার দুপুরে বিজিবি-বিএসএফের মধ্যে পতাকা বৈঠক হয়েছে।

এর আগে গতকাল সকালে হাতীবান্ধা উপজেলার সীমান্তবর্তী পূর্ব সারডুবি গ্রামের ৮৯২ নম্বর সীমান্ত পিলার সংলগ্ন এলাকায় তাদের গুলি করা হয়। আহতরা হলেন পূর্ব সারডুবি গ্রামের জোবেদা বেগম (৩৮), একই গ্রামের স্কুলছাত্র রবিউল ইসলাম (১৬), শহিদুল ইসলাম (২২) ও পার্শ্ববর্তী সিঙ্গীমারী গ্রামের আব্দুল হামিদ।

বিজিবি ও আহতদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, গতকাল সকালে সীমান্তের কাঁটাতার লাগোয়া নিজেদের জমিতে ভুট্টাক্ষেতে পাখি তাড়াতে যায় এক দল শিশু। এ সময় পাশের জমিতে তাদের অভিভাবকরাও কাজ করছিলেন। সেখানে কাঁটাতারের ওপার থেকে ভারতীয় রাজারবাড়ি তিলক ক্যাম্পের দায়িত্বরত বিএসএফ সদস্যরা শিশুদের ভয় দেখায়। এ সময় তাদের অভিভাবকসহ কয়েকজন ঘটনাস্থলে গেলে চিটা গুলি ছোড়ে বিএসএফ সদস্যরা। এতে এক নারী ও স্কুলছাত্রসহ চারজন বাংলাদেশি আহত হয়।

এ ব্যাপারে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক আল মামুন জানান, রাবার বুলেটের গুলিতে আহত চারজনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বিজিবি রংপুর ৬১ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল শরিফ বলেন, ‘এ ঘটনায় পতাকা বৈঠকে দুঃখ প্রকাশ করেছে বিএসএফ।’



মন্তব্য